Connect with us

আন্তর্জাতিক

অস্ট্রেলিয়ার আবাসন খাতে দাম বেড়েছে

Published

on

ডিএসই

অস্ট্রেলিয়ায় গত বছর আবাসন খাতে দাম ৮ শতাংশ বেড়েছে। ২০২২ সালে কমেছিল ৫ শতাংশ। হ্রাস থেকে এ বৃদ্ধিকে একটি উল্লেখযোগ্য পরিবর্তন হিসেবে দেখছেন খাতসংশ্লিষ্টরা। যদিও সুদহার বৃদ্ধি ও জীবনযাত্রার ক্রমাগত ব্যয় বছরের শেষের দিকে দামের ওপর প্রভাব ফেলেছে। খবর রয়টার্স।

প্রপার্টি খাতের পরামর্শক প্রতিষ্ঠান কোরলজিক প্রকাশিত এক পরিসংখ্যানে দেখা গেছে, ২০২৩ সালে দেশজুড়ে বাড়ির দাম বেড়েছে ৮ দশমিক ১ শতাংশ। যদিও এটি ২০২১ সালে ২৪ দশমিক ৫ শতাংশ বৃদ্ধির চেয়ে অনেক কম। গত বছরের ডিসেম্বরে বাড়ির দাম বেড়েছিল শূন্য দশমিক ৪ শতাংশ, যা ফেব্রুয়ারির পর সবচেয়ে কম বেড়েছে।

অস্ট্রেলিয়ার অন্যতম বড় শহর সিডনিতে বাড়ির দাম বার্ষিক ১১ দশমিক ১ শতাংশ বেড়েছিল। তবে সেটি ২০২২ সালে জানুয়ারিতে বৃদ্ধি পাওয়া সর্বোচ্চ দাম থেকে ২ দশমিক ১ শতাংশ কম। ২০২৩ সালে সিডনিতে বাড়ির গড় দাম ছিল ১১ লাখ ৩০ হাজার অস্ট্রেলিয়ান ডলার বা ৭ লাখ ৬৯ হাজার ৫৩০ ডলার।

সিডনি ছাড়াও বেশির ভাগ শহরে বাড়ির দাম বেড়েছে। পার্থে ১৫ শতাংশ ও ব্রিসবেনে বেড়েছে ১৩ শতাংশ। মেলবোর্নে তুলনামূলক কম বেড়েছে। সেখানে দাম বৃদ্ধির হার ছিল ৩ দশমিক ৫ শতাংশ।

কোরলজিক বিশ্লেষকরা জানিয়েছেন, উচ্চ সুদহার, মূল্যস্ফীতি, ক্রয়ক্ষমতা ও ভোক্তাদের ব্যয় সংকোচন প্রবণতা গত বছরের দ্বিতীয়ার্ধে মার্কেটকে কিছুটা ধীর করেছে।

এমআই

শেয়ার করুন:-
অর্থসংবাদে প্রকাশিত কোনো সংবাদ বা কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

আন্তর্জাতিক

তিন গুণ বাড়তে পারে রাশিয়ার এলএনজি রফতানি

Published

on

ডিএসই

বিশ্ববাজারে বড় পরিসরে তরলীকৃত প্রাকৃতিক গ্যাস (এলএনজি) রফতানি বাড়ানোর পরিকল্পনা হাতে নিয়েছে রাশিয়া। এ লক্ষ্যে দেশটিতে বিদ্যমান ও নতুন এলএনজি টার্মিনালগুলোর উৎপাদন সক্ষমতা বাড়ানো হচ্ছে। চলতি দশকের শেষ নাগাদ জ্বালানিটির রফতানি তিন গুণ বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে। দেশটির উপপ্রধানমন্ত্রী আলেকজান্ডার নোভাক সম্প্রতি এ তথ্য জানিয়েছেন।

এলএনজি রফতানিতে শীর্ষ দেশগুলোর তালিকায় চতুর্থ অবস্থানে রয়েছে রাশিয়া। রফতানি বাড়ানোর পরিকল্পনা বাস্তবায়নে সফল হলে দেশটি ছয়-আট বছরের মধ্যে প্রথম কিংবা দ্বিতীয় স্থানে উঠে আসতে পারে বলে মনে করছেন বিশ্লেষকরা।

আলেকজান্ডার নোভাকের উদ্ধৃতি দিয়ে রাশিয়ার রাষ্ট্রায়ত্ত সংবাদ সংস্থা আরআইএর এক প্রতিবেদনে বলা হয়, ২০৩০ সাল নাগাদ রাশিয়ার বার্ষিক এলএনজি রফতানি দাঁড়াতে পারে ১১ কোটি টনে, যা ২০২৩ সালের তুলনায় অন্তত তিন গুণ বেশি।

এলএনজির বৈশ্বিক রফতানি বাণিজ্যে রাশিয়ার বর্তমান বাজার হিস্যা ৮ শতাংশ। পরিকল্পিত রফতানি প্রবৃদ্ধি অর্জনে সক্ষম হলে ছয় বছরের মধ্যে এ হিস্যা ২০ শতাংশে উন্নীত হতে পারে বলে জানিয়েছেন দেশটির উপপ্রধানমন্ত্রী।

তিনি জানান, রফতানি বৃদ্ধির পরিকল্পনা বাস্তবায়নে স্থানীয় উৎপাদন লক্ষ্যণীয় মাত্রায় বাড়াতে হবে। রফতানির অবকাঠামোগুলোকে পূর্ণ সক্ষমতায় কার্যক্রম পরিচালনা করতে হবে। তা না হলে এ লক্ষ্যমাত্রা অর্জন অসম্ভব হয়ে দাঁড়াবে।

এ লক্ষ্যমাত্রা পূরণে বেশকিছু প্রতিবন্ধকতাও মোকাবেলা করতে হবে দেশটিকে। এর মধ্যে রয়েছে বিনিয়োগস্বল্পতা, টেকনিক্যাল ইস্যু ও জ্বালানি খাতে পশ্চিমা দেশগুলোর নিষেধাজ্ঞা।

রফতানিতে এমন প্রবৃদ্ধির পরিকল্পনাকে উচ্চাভিলাষী আখ্যা দিয়ে আলেকজান্ডার নোভাক বলেন, ‘‌এটি বাস্তবায়নে এলএনজি উৎপাদন ক্লাস্টারের উন্নয়ন করতে হবে। প্রাকৃতিক গ্যাস উত্তোলন, পরিশোধন, তরলীকরণ ও রফতানি সমানতালে বাড়াতে হবে।’ বাল্টিক ক্লাস্টারে ২০৩০ সাল নাগাদ উৎপাদন বেড়ে বছরে ১ কোটি ৫০ লাখ টনের গণ্ডি স্পর্শ করবে বলে আশা করছেন নোভাক। এখনো উৎপাদনে যায়নি মার্মানস্ক ক্লাস্টার। সেখানে বছরে দুই কোটি টন উৎপাদনের সম্ভাবনা রয়েছে। ইয়ামাল ক্লাস্টারে বর্তমানে বছরে দুই কোটি টন করে উৎপাদন হচ্ছে। আট বছরের মধ্যে তা ছয় কোটি টনে উন্নীত করার পরিকল্পনা রয়েছে। অন্যদিকে সাখালিন ক্লাস্টারে উৎপাদন ১ কোটি ১০ লাখ থেকে বেড়ে ১ কোটি ৫০ লাখ টনে উন্নীত হওয়ার সম্ভাবনা দেখছেন খাতসংশ্লিষ্টরা।

ইউক্রেনে হামলার প্রতিক্রিয়ায় ইউরোপীয় ইউনিয়নের কয়েক দফা নিষেধাজ্ঞার মুখে পড়ে রুশ জ্বালানি খাত। সমুদ্রপথে দেশটি থেকে অপরিশোধিত জ্বালানি তেল আমদানি বন্ধ করে দিয়েছে অঞ্চলটি। এতে পাইপলাইনের মাধ্যমে গ্যাস আমদানিতেও নেতিবাচক প্রভাব পড়ে। তবে নিষেধাজ্ঞার মুখে পড়েনি রুশ এলএনজি রফতানি। ইউরোপে গত বছর থেকেই এলএনজি রফতানি বাড়ছে। পাশাপাশি এশিয়ার বাজারেও পেয়েছে নতুন মাত্রা। বিশেষ করে ভারত ও চীনে বিপুল পরিমাণ এলএনজি রফতানি করছে রাশিয়া।

এলএনজির বৈশ্বিক চাহিদা ২০২৪ সাল নাগাদ ৫০ শতাংশেরও বেশি বাড়ার সম্ভাবনা তৈরি হয়েছে। বৈশ্বিক চাহিদা প্রবৃদ্ধিতে রসদ জোগাচ্ছে চীন এবং দক্ষিণ ও দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার দেশগুলো। অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধির লক্ষ্যে জ্বালানিটির ব্যবহার বাড়াচ্ছে এসব দেশ। ব্রিটিশ বহুজাতিক জ্বালানি তেল ও গ্যাস কোম্পানি শেল এনার্জি সম্প্রতি এক প্রতিবেদনে এমনটা জানায়। চাহিদা প্রবৃদ্ধির এমন সম্ভাবনাও রাশিয়াকে রফতানি বাড়াতে উৎসাহিত করছে।

শেয়ার করুন:-
অর্থসংবাদে প্রকাশিত কোনো সংবাদ বা কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
পুরো সংবাদটি পড়ুন

আন্তর্জাতিক

অনুমতি ছাড়া হজ করলে কঠোর শাস্তির হুঁশিয়ারি সৌদির

Published

on

ডিএসই

আসন্ন হজ মৌসুমে অনুমতি ছাড়া হজ পালন থেকে বিরত থাকার জন্য পর্যটক এবং বাসিন্দাদের সতর্কতা দিয়েছে সৌদি আরব। নিরবিচ্ছিন্ন ও সুন্দরভাবে হজ মৌসুম শেষ করতে কঠোর শাস্তির বিধান রেখেছে দেশটি।

সৌদির হজ ও ওমরাহ মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, অনুমতি ছাড়া হজ পালন করা বেআইনি। আর যারা এ আইন ভঙ্গ করবেন তাদের ৫০ হাজার রিয়াল জরিমানা করা হবে। যা বাংলাদেশি অর্থে প্রায় ১৫ লাখ টাকার সমান।

এমনকি যে বা যারা অনুমতিবিহীন ব্যক্তিদের মক্কায় পরিবহন করে ধরা পড়বেন তাদেরকেও ৫০ হাজার রিয়াল জরিমানা করা হবে।

অপরদিকে যেসব প্রবাসী হজ মৌসুমের এই আইন ভঙ্গ করবেন— তাদের প্রথমে ছয় মাসের কারাদণ্ড দেওয়া হবে। কারাভোগের পর নিজ দেশে তাদের ফেরত পাঠানো হবে এবং পরবর্তী ১০ বছরে সৌদিতে প্রবেশের ক্ষেত্রে তাদের ওপর নিষেধাজ্ঞা দেওয়া হবে।

এছাড়া এই আইন ভঙ্গকারীদের পরিচয় স্থানীয় সংবাদমাধ্যমে প্রকাশ করা হবে। যেন তাদের আশপাশের সবাই চিনে রাখতে পারেন।

ইসলামের পাঁচটি স্তম্ভের অন্যতম একটি হলো হজ। আর্থিক ও শারীরিকভাবে সুস্থ সকল মুসলিম নর-নারীর জন্য জীবনে একবার হলেও হজ করা বাধ্যতামূলক।

চাঁদ দেখা সাপেক্ষে এ বছর জুনের ১৪ তারিখে হজ শুরু হতে পারে।

করোনা বিধিনিষেধ না থাকায় গত বছরের মতো এবারও হজ পালনে পবিত্র মক্কা নগরীতে সমবেত হবেন লাখ লাখ মানুষ।

বিশ্বের বিভিন্ন দেশ থেকে অনেক মানুষ হজ করতে যান। এছাড়া সৌদির স্থানীয় মানুষও পবিত্র হজ পালন করে থাকেন।

শেয়ার করুন:-
অর্থসংবাদে প্রকাশিত কোনো সংবাদ বা কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
পুরো সংবাদটি পড়ুন

আন্তর্জাতিক

বিশ্ব বাজারে আরও কমলো জ্বালানি তেলের দাম

Published

on

বিশ্ববাজারে তেলের দাম ফের বেড়েছে

বিশ্ব বাজারে জ্বালানি তেলের দাম কমেছে। যুক্তরাষ্ট্রের কেন্দ্রীয় ব্যাংক সুদের হার অন্তত আরও দুই মাসের মধ্যে কমাবে না এমন ইঙ্গিত মেলায় তেলের দাম কমেছে।

শুক্রবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) বিকেলের দিকে ব্যারেলপ্রতি ব্রেন্ট ক্রুডের দাম ১ দশমিক ৩৫ ডলার বা ১ দশমিক ৬ শতাংশ কমে ৮২ দশমিক ৩২ ডলারে দাঁড়িয়েছে। ওয়েস্ট টেক্সাস ইন্টারমিডিয়েটের দাম ব্যারেলপ্রতি ১ দশমকি ৩৫ ডলার বা ১ দশমিক ৭ শতাংশ কমে ৭৭ দশমিক ২৬ ডলারে দাঁড়িয়েছে।

সপ্তাহের ভিত্তিতেও কমতে যাচ্ছে উভয় বেঞ্চমার্কের দাম। এর আগের দুই সপ্তাহ দাম বাড়তির দিকে ছিল। তবে চাহিদা ও সরবরাহ উদ্বেগের কারণে শিগগিরই দাম আরও বাড়তে পারে বলে ইঙ্গিত মিলেছে।

বৃহস্পতিবার মার্কিন কেন্দ্রীয় ব্যাংকের গভর্নর জানিয়েছেন, নীতি নির্ধারকরা সুদের হার কমানোর ক্ষেত্রে অন্তত আরও দুইমাস সময় নিতে পারেন। তাদের এই সিদ্ধান্তে প্রবৃদ্ধি ধীর হওয়ার পাশাপাশি তেলের চাহিদা কমতে পারে বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

তবে কিছু বিশ্লেষকরা মনে করছেন, উচ্চ সুদের প্রভাবের মধ্যে এখনো তেলের দাম বেশি রয়েছে।

এদিকে ইউক্রেনে রুশ আগ্রাসনের দ্বিতীয় বার্ষিকীতে রাশিয়ার ৫০০’রও বেশি ব্যক্তি-প্রতিষ্ঠানের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করার ঘোষণা দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। বৃহস্পতিবার (২২ ফেব্রুয়ারি) এক সাক্ষাৎকারে ডেপুটি মার্কিন ট্রেজারি সেক্রেটারি ওয়ালি অ্যাডেইমো এই তথ্য জানান।

ওয়ালি অ্যাডেইমো জানান, রাশিয়ার সামরিক শিল্প কারখানা ও সেগুলো সঙ্গে জড়িত অন্যান্য দেশের বিভিন্ন কোম্পানিও এ নিষেধাজ্ঞার আওতায় পড়বে। যুক্তরাষ্ট্রের দাবি, এসব কোম্পানি রাশিয়াকে তার চাহিদা অনুযায়ী পণ্য পেতে সহায়তা করে।

শেয়ার করুন:-
অর্থসংবাদে প্রকাশিত কোনো সংবাদ বা কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
পুরো সংবাদটি পড়ুন

আন্তর্জাতিক

শিশুর সামনে ধূমপান করলে দেড় লাখ টাকা জরিমানা

Published

on

ডিএসই

শিশুদের সামনে ধূমপান করাকে বেআইনি ঘোষণা করেছে সংযুক্ত আরব আমিরাত সরকার। যদি কেউ সরকারি এ নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে কোনো শিশুর সামনে ধূমপান করেন তাহলে তাকে ৫ হাজার দিরহাম বা দেড় লাখ টাকা জরিমানা গুনতে হবে।

সম্প্রতি এক প্রতিবেদনে খালিজ টাইমস জানিয়েছে, আরব আমিরাতের শিশু অধিকার সংক্রান্ত ওয়াদিমা আইন অনুযায়ী, শিশুর সামনে ধূমপান করাকে বেআইনি ঘোষণা করা হয়েছে।

এক্ষেত্রে কোনো পাবলিক বা প্রাইভেট গাড়িতে কিংবা কোনো আবদ্ধ স্থানে ১২ বছরের কম বয়সী কোনো শিশুর সামনে ধূমপান নিষিদ্ধ বলে বিবেচিত হবে। তবে সরকারের এই নিষেধাজ্ঞা কেউ অমান্য করলে তাকে ৫ হাজার দিরহাম জরিমানা দিতে হবে যা বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় দেড় লাখ টাকা।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার বলেছে কেউ ধূমপান না করলেও সে যদি ধূমপানের সংস্পর্শে আসে তবে তার স্বাস্থ্যেও ক্ষতিকর প্রভাব পড়ে। ফলে শিশুদের সামনে ধূমপান করলে তাদের স্বাস্থ্যগত ক্ষতি হতে পারে। এই ক্ষতি এড়াতেই মূলত ধূমপায়ীদের দূরত্ব বজায় রাখার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। আর এ কারণেই নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে সরকার।

প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে, এই নিষেধাজ্ঞার পাশাপাশি অপ্রাপ্তবয়স্কদের কাছে তামাক কিংবা নিকোটিন-জাতীয় কোনো পণ্য বিক্রি করাও নিষিদ্ধ করেছে দেশটির সরকার। আর এই নিষেধাজ্ঞা অমান্য করলে দিতে হবে ১৫ হাজার দিরহাম; যা বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় সাড়ে ৪ লাখ টাকা। আর জরিমানা আদায় না করলে ৩ মাসের কারাদণ্ড ভোগ করতে হবে।

শেয়ার করুন:-
অর্থসংবাদে প্রকাশিত কোনো সংবাদ বা কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
পুরো সংবাদটি পড়ুন

আন্তর্জাতিক

অর্ধশতাব্দী পর চাঁদে অবতরণ করলো মার্কিন মহাকাশযান

Published

on

ডিএসই

অর্ধশতাব্দী পর আবারও চাঁদে অবতরণ করেছে যুক্তরাষ্ট্রের একটি মহাকাশযান। দেশটির টেক্সাস-ভিত্তিক কোম্পানি ইনটুইটিভ মেশিনস-এর নির্মিত এবং তাদের পরিচালিত উড্ডয়নে একটি মহাকাশযান স্থানীয় সময় বৃহস্পতিবার চাঁদের দক্ষিণ মেরুর কাছে অবতরণ করে।

গত অর্ধ শতাব্দীরও বেশি সময়ের মধ্যে এটিই চন্দ্র পৃষ্ঠে প্রথম মার্কিন স্পর্শ। এছাড়া এটি আরেকটি কারণেও ঐতিহাসিক। আর তা হচ্ছে- এই প্রথম কোনও বেসরকারি সংস্থার তৈরি মহাকাশযান অবতরণ করলো চাঁদের মাটিতে।

শুক্রবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে বার্তাসংস্থা রয়টার্স।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ‘অডিসিয়াস’ নামে পরিচিত ছয় পায়ের এই রোবট ল্যান্ডারটি যুক্তরাষ্ট্রের স্থানীয় সময় বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৬:২৩ মিনিটে (বাংলাদেশ সময় শুক্রবার ভোর ৫টা ২৩ মিনিট) চাঁদে অবতরণ করে।

অডিসিয়াস মহাকাশযানটি তৈরি করেছে ‘ইনটুইটিভ মেশিনস’ নামে এক বাণিজ্যিক মহাকাশ সংস্থা। সংস্থাটির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) স্টিভ অলটেমাস বলেছেন, ‘আমরা এখন চন্দ্রপৃষ্ঠে এবং সেখান থেকে তথ্য পাঠাচ্ছি। চাঁদে আপনাদের স্বাগত।’

অবশ্য ল্যান্ডারটি ঠিক কী অবস্থায় আছে, তা এখনও বিস্তারিত জানায়নি সংস্থাটি। তবে চাঁদে যে সেটি নেমেছে, তা নিশ্চিত করা হয়েছে। চাঁদের দক্ষিণ মেরুর কাছে মালাপের্ট নামে এক খাতের কাছে অবতরণ করেছে এই মার্কিন মহাকাশযান।

মার্কিন মহাকাশ গবেষণা সংস্থা নাসা জানিয়েছে, চাঁদের দক্ষিণ মেরু অঞ্চল অত্যন্ত উঁচু-নিচু। বড় বড় গর্তের পাশাপাশি সেখানে উচ্চভূমিও রয়েছে। দক্ষিণ মেরু থেকে কিছুটা দূরেই নেমেছে অডিসিয়াস। এলাকাটি তুলনামূলকভাবে সমতল এবং নিরাপদ বলে জানিয়েছে নাসা।

মূলত চাঁদের পরিবেশ সম্পর্কে আরও জানতে এই জায়গাটিকেই অবতরণের জন্য বেছে নেওয়া হয়েছে। এই এলাকায় যোগাযোগ ব্যবস্থা কীভাবে কাজ করে, দক্ষিণ মেরু অঞ্চলের পরিবেশ ইত্যাদি বিষয়ে গবেষণা করা হবে।

এদিকে মহাকাশযানটি অবতরণের ঠিক আগের মুহূর্তে অবশ্য যোগাযোগ নিয়ে কিছু সমস্যা দেখা দিয়েছিল। ফলে, যে সময়ে অবতরণের কথা ছিল, তার থেকে দেরিতে অবতরণ করে যানটি। ইনটুইটিভ মেশিনস-এর ফ্লাইট কন্ট্রোলার বিভাগ জানিয়েছে, অবতরণের পর ল্যান্ডারটি থেকে ফের সংকেত আসছে।

উল্লেখ্য, চলতি মাসের ১৫ ফেব্রুয়ারি যুক্তরাষ্ট্রের কেনেডি স্পেস সেন্টার থেকে স্পেসএক্স সংস্থার তৈরি ফ্যালকন-৯ রকেটে চড়ে চাঁদের উদ্দেশে রওনা হয় অডিসিয়াস। মহাকাশে প্রবেশ করার কয়েক মিনিট পর, রকেটটি থেকে মহাকাশযানটি বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়।

মূলত অ্যাপোলো অভিযানের সময় মার্কিনিরা যে পথে চাঁদে যেত, সেই একই পথে এগিয়ে যায় অডিসিয়াসও। আর এর মাধ্যমে মাত্র আট দিনে চাঁদে পৌঁছে গেল অডিসিয়াস।

শেয়ার করুন:-
অর্থসংবাদে প্রকাশিত কোনো সংবাদ বা কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
পুরো সংবাদটি পড়ুন
ডিএসই
আন্তর্জাতিক9 mins ago

তিন গুণ বাড়তে পারে রাশিয়ার এলএনজি রফতানি

ডিএসই
জাতীয়15 mins ago

আর কোনো রোহিঙ্গাকে আশ্রয় দেয়া সম্ভব নয়: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

ডিএসই
জাতীয়31 mins ago

চালের বাজার ঠিক রাখতে জেলায় জেলায় বৈঠক করতে হয়েছে: খাদ্যমন্ত্রী

ডিএসই
সারাদেশ1 hour ago

নাটোরে বিয়ে করতে এসে ধরা দুই কিশোরী

ডিএসই
অর্থনীতি1 hour ago

বিনিয়োগে প্রযুক্তির সুবিধা নিতে হবে: বিডা চেয়ারম্যান

ডিএসই
আন্তর্জাতিক2 hours ago

অনুমতি ছাড়া হজ করলে কঠোর শাস্তির হুঁশিয়ারি সৌদির

ডিএসই
ক্যাম্পাস টু ক্যারিয়ার2 hours ago

ঢাবির ‌‘সি’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা আগামীকাল

বিশ্ববাজারে তেলের দাম ফের বেড়েছে
আন্তর্জাতিক3 hours ago

বিশ্ব বাজারে আরও কমলো জ্বালানি তেলের দাম

ডিএসই
জাতীয়3 hours ago

ওআইসি সম্মেলনে যোগ দিতে তুরস্কে তথ্য প্রতিমন্ত্রী

ডিএসই
পুঁজিবাজার4 hours ago

সপ্তাহের ব্যবধানে ডিএসইর লেনদেন কমেছে ৫৫ শতাংশ

Advertisement
Advertisement

ফেসবুকে অর্থসংবাদ

২০১৮ সাল থেকে ২০২৩

অর্থসংবাদ আর্কাইভ

তারিখ অনুযায়ী সংবাদ

রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯