৮৪৫ কোটি টাকায় নিউইয়র্কে হোটেল কিনছেন আম্বানি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক প্রকাশ: ২০২২-০১-১৪ ১৩:০১:১৫

মাত্র ৮৪৪ কোটি টাকায় যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্ক সিটির বিলাসবহুল হোটেল ম্যান্ডারিন ওরিয়েন্টালের অধিকাংশ শেয়ারের মালিকানা কিনতে চলেছেন এশিয়ার সবচেয়ে বড় ধনকুবের মুকেশ আম্বানি।

দুবাইয়ের ইনভেস্টমেন্ট করপোরেশনের কেম্যান দ্বীপপুঞ্জভিত্তিক একটি প্রতিষ্ঠানের কাছে রয়েছে হোটেল ম্যান্ডারিন ওরিয়েন্টালের ৭৩ দশমিক ৪ শতাংশের মালিকানা। সেই প্রতিষ্ঠানের কাছ থেকে ৯ কোটি ৮২ লাখ মার্কিন ডলারের বিনিময়ে হোটেলটি অধিগ্রহণ করবে আম্বানির প্রতিষ্ঠান রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রিজ। এই অধিগ্রহণের মূল্য বাংলাদেশের প্রায় ৮৪৫ কোটি টাকা (প্রতি ডলার ৮৬ টাকা ধরে)। আগামী মার্চের শেষ দিকে অধিগ্রহণ চুক্তি সম্পন্ন হবে বলে আশা করা হচ্ছে।

তবে হোটেলটির পুরো মালিকানা নিতেই আগ্রহী আম্বানির প্রতিষ্ঠান। রিলায়েন্স জানিয়েছে, হোটেলটির অন্যান্য মালিক তাঁদের শেয়ার বিক্রি করতে চাইলে একই মূল্যায়নের ভিত্তিতে অধিগ্রহণের পরিকল্পনা করা হবে।

২০০৭ সালে ম্যান্ডারিন ওরিয়েন্টাল হোটেলের সম্পত্তির মূল্য ছিল ৩৪ কোটি ডলার (বাংলাদেশের ২ হাজার ৯২২ কোটি টাকার মতো)। সেই হিসাবে বিশাল মূল্য ছাড়েই হোটেলটি পেতে চলেছে রিলায়েন্স। এর কারণ অবশ্য করোনাভাইরাসের বৈশ্বিক সংক্রমণ। তবে মূল্য যা–ই হোক নিউইয়র্ক সেন্ট্রাল পার্কের কাছে অবস্থিত এই হোটেলের মালিকানা পাওয়া রিলায়েন্সের জন্য একটি বড় অর্জন হবে বলে মনে করা হচ্ছে।

গত দুই বছরে বেশির ভাগ হোটেলের মতো ম্যান্ডারিন ওরিয়েন্টালও ব্যাপক ক্ষতির মুখে পড়ে। নিউইয়র্কের হোটেলটি যেখানে ২০১৮ ও ২০১৯ সালে যথাক্রমে সাড়ে ১১ কোটি ও ১১ কোটি ৩০ লাখ ডলার আয় করেছিল, সেখানে মহামারি শুরুর পর ২০২০ সালে মাত্র দেড় কোটি ডলার আয় করে।

জ্বালানি, পেট্রোকেমিক্যাল, প্রাকৃতিক গ্যাস, টেলিযোগাযোগ, বস্ত্র, খুচরা বিক্রি ও প্রযুক্তি ব্যবসার পর মুকেশ আম্বানির রিলায়েন্সের পালকে এবার ‘ভোক্তা ও আতিথেয়তা সেবা’ যুক্ত হতে চলেছে। প্রতিষ্ঠানটি ইতিমধ্যে ভারত, যুক্তরাজ্যসহ কয়েকটি স্থানে বিলাসবহুল সম্পত্তি ক্রয় করেছে। সেসবের ধারবাহিকতায় ম্যান্ডারিন ওরিয়েন্টাল অধিগ্রহণ করছে ভারতের রিলায়েন্স গ্রুপ।

সাম্প্রতিক মাসগুলোতে ভারতীয় ধনকুবের আম্বানির সম্পদ বেড়েছে। ব্লুমবার্গ বিলিয়নিয়ারস ইনডেক্স অনুসারে, তাঁর সম্পদের বর্তমান মূল্য ৯ হাজার ২৯০ কোটি ডলার। বদৌলতে তিনি ভারতের ১ নম্বর ও বিশ্বের ১১তম ধনী ব্যক্তি। সূত্র: সিএনএন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আমরা সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।