সুদানে অভ্যুত্থানবিরোধী বিক্ষোভে গুলি, নিহত ৩

নিউজ ডেস্ক, অর্থ সংবাদ.কম, ঢাকা প্রকাশ: ২০২২-০১-০৭ ১৫:০৫:০২

সুদানে অভ্যুত্থানবিরোধী বিক্ষোভে নিরাপত্তা বাহিনীর গুলিতে ৩ জন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন আরও কয়েকশো মানুষ।

বৃহস্পতিবার (৬ জানুয়ারি) আফ্রিকার এই দেশটিতে নিরাপত্তা বাহিনীর গুলিতে হতাহতের এই ঘটনা ঘটে।

গত অক্টোবরে সামরিক অভ্যুত্থানের মাধ্যমে সুদানে ক্ষমতা দখল করে সেনাবাহিনী। এরপর থেকে বেসামরিক শাসনের দাবিতে বিক্ষোভ চলছে। এরই অংশ হিসেবে বৃহস্পতিবার হাজার হাজার মানুষ রাস্তায় নেমেছিলেন। নিরাপত্তা বাহিনী প্রথমে কাঁদানে গ্যাস নিক্ষেপ করে ও পরে গুলিবর্ষণ করে। আর এতেই তিনজন নিহত ও তিনশো জন আহত হন।

সুদান ডক্টরস কমিটি জানিয়েছে, সামরিক অভ্যুত্থানের মাধ্যমে ক্ষমতা দখলের পর থেকে সুদানে এখন পর্যন্ত ৬০ জন বিক্ষোভকারী নিহত হয়েছেন।

সুদানের সরকারি কর্মকর্তারা অবশ্য গুলি চালানোর ঘটনা অস্বীকার করে একাধিকবার জানিয়েছে, বিক্ষোভকারীদের ওপর গুলি চালানো হয়নি। বৃহস্পতিবারই মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্টনি ব্লিংকেন সুদানের নিরাপত্তা বাহিনীর কাছে বিক্ষোভে গুলি না চালানোর আবেদন জানিয়েছিলেন। এরপরও বিক্ষোভে গুলি ও প্রাণহানির ঘটনা ঘটলো।

নিহত তিন জনের মধ্যে সুদানের রাজধানী খার্তুমের পার্শ্ববর্তী ওমডারমান শহরে নিরাপত্তা বাহিনীর গুলিতে দুইজন বিক্ষোভকারী মারা গেছেন। আর বাহরি জেলায় মারা গেছেন একজন। সুদান ডক্টরস কমিটির কর্মকর্তা নাদিম সিরাগ বলেছেন, একজন বিক্ষোভকারীর মাথায় গুলি লেগেছিল। হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার আগেই তিনি মারা যান। অনেকে আহত হয়েছেন।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, সুদানের বিভিন্ন জায়গায় বিক্ষোভ চলছে। ২২ বছর বয়সী বিক্ষোভকারী সামার আল-তায়েব বার্তাসংস্থা এএফপি’কে জানিয়েছেন, সেনাবাহিনী ক্ষমতা না ছাড়া পর্যন্ত বিক্ষোভ চলবে।

মূলত বৃহস্পতিবার সকাল থেকে সুদানে ইন্টারনেট বন্ধ ছিল। তা সত্ত্বেও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে বিক্ষোভের ভিডিও আপলোড করা হয়েছে। সেখানে দেখা যাচ্ছে, সুদানের পতাকা নিয়ে বিক্ষোভকারীরা বলছেন, জনগণের কাছে ক্ষমতা ফিরিয়ে দিতে হবে।

এছাড়া নিরাপত্তা বাহিনীকে কাঁদানে গ্যাসের শেল নিক্ষেপ করতে এবং এর জবাবে বিক্ষোভকারীদের ইট ছুঁড়তেও দেখা যায় ভিডিওতে। -ডয়চে ভেলে

 

আমরা সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।