প্রধানমন্ত্রীর উপহার পাচ্ছেন ১ হাজার ৯১ গৃহহীন পরিবার

নিজস্ব প্রতিবেদক প্রকাশ: ২০২১-০১-১১ ১২:৩২:৩১, আপডেট: ২০২১-০১-১১ ১৩:০১:১৬

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশত বার্ষিকী উপলক্ষে ভূমিহীন ও গৃহহীনদের জন্য খাস জমিতে নির্মাণ করা হচ্ছে সরকারি ঘর। এতে ১হাজার ৯১ জন ভূমিহীন ও গৃহহীন পাচ্ছে এসব পাকা ঘর।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) আশ্রাফ আহমেদ রাসেল এ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, জেলা প্রশাসকের পক্ষ থেকে ঘর নির্মাণ কাজ ও নির্মাণের মান তদারকি করা হচ্ছে। আগামী ২০ জানুয়ারির মধ্যে সব গৃহ নির্মাণ কাজ সম্পন্ন হবে। এখন পর্যন্ত প্রায় ঘর নির্মাণের কাজ ৮০ শতাংশ সম্পর্ণ হয়েছে। বাকী কাজ ও দ্রুত গতিতে এগিয়ে চলছে।

তিনি আরও জানান, জেলার ভূমিহীন ও গৃহহীনকে ২ শতাংশ জমি দিয়ে ঘর তৈরি করে দেওয়া হচ্ছে। দুই কক্ষ বিশিষ্ট প্রতিটি আধা পাকা ঘরের নির্মাণ ব্যয় এক লাখ ৭১ হাজার টাকা। সবগুলো ঘর একই নকশায় হচ্ছে।

প্রথম ধাপে জেলায় ১০৯১টি ভূমি ও গৃহহীন পরিবারকে ২ শতক জমি ও বসত বাড়ি নির্মাণ করে দেয়া হচ্ছে। পর্যায়ক্রমে জেলার সব ভূমি ও গৃহহীনদের এ কর্মসূচির আওতায় নিয়ে আসা হবে।

‘আশ্রয়ণের অধিকার, শেখ হাসিনার উপহার’ এই স্লোগান নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর অগ্রাধিকার আশ্রয়ণ-২ প্রকল্পের আওতায় যাদের জমি নেই, ঘর নেই তাদের পুনর্বাসনের জন্য সরকারি খাস জমিতে এসব ঘর নির্মাণ করা হচ্ছে।

জেলার ৯ টি উপজেলার মধ্যে সদরে ৩২টি পরিবার, বিজয়নগরে ১০০টি পরিবার, সরাইলে ১০২টি পরিবার, নবীনগরে ৪৮৫টি পরিবার, নাসিরনগরচরে ৯১টি পরিবার, বাঞ্ছারামপুরে ৬৪ টি পরিবার, আশুগঞ্জে ৬৮টি পরিবার, কসবায় ১০৪ টি পরিবার ও আখাউড়ায় ৪৫টি পরিবার পাবেন মাথা গোঁজার ঠাঁই। জেলা প্রশাসনের সার্বিক তত্ত্বাবধানে ঘরগুলো নির্মাণ কাজ দ্রুত গতিতে এগিয়ে চলছে।

 

 

 

আমরা সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।