নাটোরে সবজির দাম অর্ধেকে নেমে এসেছে

নিজস্ব প্রতিবেদক প্রকাশ: ২০২০-১১-২১ ১৩:৪৬:১৮

মাত্র এক সপ্তাহের ব্যবধানে নাটোর শহরের স্টেশনবাজারে পাইকারি সবজির দাম অর্ধেকে নেমে এসেছে। ভোর থেকে কৃষকরা উৎপাদিত সবজি নিয়ে আসেন নাটোরের স্টেশন বাজারের পাইকারি বাজারে। প্রতিদিনই বাড়ছে সরবরাহ। কমছে দাম, দীর্ঘদিন পর দাম নাগালে আসায় খুশি ক্রেতারা।

পাইকাররা বলেন, সরবরাহ বাড়ায় দাম কমেছে। সবজির দাম কমে যাওয়ায় এদিকে ক্রেতারা খুশি হলেও কৃষকদের মন ভালো নেই। ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছেন হচ্ছেন কৃষকরা।

ব্যবসায়ীরা বলেন,আগামী সপ্তাহে সবজির দাম আরও কমবে। এদিন বাজার ঘুরে দেখা যায়, ফুলকপি ৪০ টাকা, বেগুন ২০ টাকা, মুলা ২০ টাকা, বরবটি, শিম ৩০-৩৫ টাকা, করলা ৩০ টাকা, টমেটো ৭০ টাকা, পেঁপে ১৫-১৭ টাকা, ঢেঁড়শ ২০ টাকা দামে বিক্রি হচ্ছে।

ক্রেতারা বলছেন, দাম কম থাকায় আমরা গরিব মানুষ খেতে পারছি। সবাই কিনছে।

কৃষকরা জানান, শাক-সবজির দাম কমে আসায় লোকসান গুনতে হচ্ছে তাদের। বন্যা ও বৃষ্টির কারণে অন্যান্য ফসলে ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ায় সবজি আবাদ করে ঘাটতি পুষিয়ে নেয়ার আশা করেছিলেন। বিক্রেতারা বলছেন, দাম খুবই কম। নেয়ার মতো লোকই নাই। আমরা গৃহস্থরা বিক্রি নিয়ে চিন্তায় আছি।

আড়তদারদের ধারণা আগামী দিনগুলোতে সরবরাহ আরও বাড়বে। অন্য সময় এই বাজারে প্রতিদিন আড়াই থেকে ৩শ’ মণ সবজি আসলেও বর্তমানে আসছে সাড়ে ৪শ’ থেকে ৫শ’ মণ।

নাটোর শহরের এই পাইকারি সবজির বাজারের আড়তদাররা বলছেন, এ বছর সরবরাহ বেশি থাকায় দাম কম। আমদানি আরো বেশি হলে দাম আরও কমে যাবে।

অর্থসংবাদ/এসএ/১৩:৪৫/১১:২১:২০২০

 

 

আমরা সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।