সংকুচিত হতে পারে ফ্রান্সের জিডিপি

নিজস্ব প্রতিবেদক প্রকাশ: ২০২০-১১-১৯ ১৯:১৬:০৭

করোনার দ্বিতীয় ঢেউ সামনে রেখে আবারও ফ্রান্সের অর্থনীতিতে অশনিসংকেত দেখা দিয়েছে। অর্থবছরের শেষ প্রান্তিকে অর্থনীতি ৯-১০ শতাংশ সংকুচিত হতে পারে বলে হুঁশিয়ার করে দেশটির জাতীয় পরিসংখ্যান সংস্থা ইনসি এ পূর্বাভাস দিয়েছে। একই সময়ে দেশজ উৎপাদন ২ দশমিক ৬ শতাংশ কমে যাওয়ারও আশঙ্কা প্রকাশ করেছে সংস্থাটি।

নভেল করোনাভাইরাস সংক্রমিত ও হাসপাতালে ভর্তি হওয়া রোগীর সংখ্যা বেড়ে যাওয়ায় গত মাসের শেষের দিকে নতুন করে লকডাউন আরোপ করে ফরাসি সরকার। তবে এবারের লকডাউনের বিধিনিষেধ আগেরবারের মতো অতটা কঠোর নয়। এ কারণে ইনসি ধারণা করছে, অর্থনীতিতে এর প্রভাবও হবে আগেরবারের তুলনায় কিছুটা কম।

সংস্থাটি বলেছে, এপ্রিলে যদি অর্থনৈতিক কার্যক্রম মহামারীপূর্ব সময়ের চেয়ে ৩০ শতাংশ সংকুচিত হয়ে থাকে, তবে নভেম্বরে এ হার ১৩ শতাংশের আশেপাশে থাকবে বলে আশা করা যায়। তবে রেস্তোরাঁয় বসে খাবার খাওয়া ও ভ্রমণের ওপর নিষেধাজ্ঞা থাকায় চলতি মাসে এসব খাতের কার্যক্রমে ৬০ শতাংশ পতন দেখা যেতে পারে। আলোচ্য সময়ে বিনোদন খাতের কার্যক্রমে ৪০ শতাংশ সংকোচনের পূর্বাভাস জানিয়েছে ইনসি।

পরিস্থিতিতে উন্নতি হওয়া সাপেক্ষে আগামী ডিসেম্বরের শুরুর দিকেই লকডাউন তুলে নেয়ার পরিকল্পনা রয়েছে ফ্রান্সের। এমনটি হলে চতুর্থ প্রান্তিকে দেশটির জিডিপি সংকোচন ২ দশমিক ৫ শতাংশের মধ্যেই সীমিত থাকবে বলে আশা করছে ইনসি। আর যদি পুরো ডিসেম্বর লকডাউন চলে, তবে অর্থনৈতিক পতনের হার ৬ শতাংশে গিয়ে ঠেকতে পারে বলে মনে করছে তারা।

অর্থসংবাদ/ এমএস/১৯: ১৬/ ১১: ১৯: ২০২০

 

আমরা সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।