রাজধানীতেও মানছে না স্বাস্থ্যবিধি!

নিজস্ব প্রতিবেদক প্রকাশ: ২০২০-১১-১২ ১২:০১:০৬, আপডেট: ২০২০-১১-১২ ১২:৪৩:২৫

বিশ্বজুড়ে এখন সবচেয়ে বড় আতঙ্কের নাম করোনাভাইরাস। করোনাভাইরাস মহামারীতে প্রতিদিন বাড়ছে মৃতের সংখ্যা। সংক্রমন ছড়িয়ে পড়ছে দেশজুড়ে। সংক্রমন থেকে বাঁচতে দেশে আতংক বিরাজ করলেও রাজধানীর অধিকাংশ সাধারণ মানুষ মানছে না সামাজিক দূরত্ব। জীবিকার প্রয়োজনে ঘর থেকে বের হলেও স্বাস্থ্যবিধি না মানায় বাড়ছে আক্রান্তের হার।

রাজধানীর গণপরিবহনে মানা হচ্ছে না স্বাস্থ্যবিধি। চালক হেল্পার থেকে শুরু করে যাত্রীদের মাঝে ও নেই সচেতনতা। অধিকাংশ মানুষের সাথে মাস্ক দেখা গেলেও কেউ তা সঠিক নিয়মে ব্যবহার করছেন না। কারও মাস্ক হাতে কিংবা পকেটে। আবার কারও মুখের নিচে।

আজ সকালে রজধানীর বাড্ডা এলাকা ঘুরে দেখা যায়, অফিসগামী যাত্রীদের ভিড়ে স্বাস্থ্যবিধির তোয়াক্কাই করছেনা কেউ। বাস  আসতেই বাসের আসন সংখ্যা ভর্তি হয়ে যায়। আসন সংখ্যা ভর্তি হওয়ার পরও অতিরিক্ত অনেক যাত্রী বহন করছে বাসগুলোতে। তাই বাসের আসন না পেয়ে অনেকেই দাঁড়িয়ে থাকে।

বাসে যাত্রী উঠানোর সময় হ্যান্ড স্যানিটাইজার বা তাপমাত্রা মাপার ও কোনো যন্ত্র দেখা যায়নি। বাসের হেলপার চালক সবাই করোনার আগের মতো চলাফেরা করে। কারো মাঝে নেই কোনাে ধরনের সতর্কতা।

রাজধানীর বাড্ডায় কাবির নামে একজন পথচারির সাথে কথা হয়। তিনি বলেন, করােনাভাইরাস যখন বাংলাদেশে ছড়িয়ে পড়ে তখন মানুষের মাঝে এক ধরনের আতঙ্ক ছিল। কিন্তু এখন তেমন কোনো আতঙ্ক লক্ষ করা যায় না। তবে আমাদের সতর্ক হয়ে চলাফেরা করা উচিত।

অর্থসংবাদ/ এসআর

 

 

আমরা সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।