৫০ রুপিতে দেখা যাবে সালমান-শাহরুখের সিনেমা

নিজস্ব প্রতিবেদক প্রকাশ: ২০২০-১১-১০ ১৪:০২:২২

করোনার পর আবারো দর্শক হলে টানতে দীপাবলিতে সিনেমার টিকিটের মুল্য করে দেওয়া হচ্ছে মাত্র ৫০ রুপি। ভারতের সবচেয়ে বড় তিনটি মাল্টিপ্লেক্স চেইন পিভিআর সিনেমা, আইএনওএক্স এবং সিনেমাপলিস। তিনি প্রতিষ্ঠানই একসঙ্গে এই দীপাবলীতে যশরাজ ফিল্মসের ৫০ বছর উদযাপন করতে যুক্ত হচ্ছে। তারা করোনার এই সময় দেশের হল মালিকদের অবস্থা চিন্তা করে দারুণ একটি প্রস্তাবনা নিয়ে হাজির হয়েছে।

বড় প্রেক্ষাগৃহের মালিকদের সাথে দীর্ঘ আলাপচারিতার পর এমন সিদ্ধান্ত নেয় যশরাজ ফিল্মস। চলতি বছর নির্মাতা প্রতিষ্ঠানটির ৫০ বছর পূর্তি করতে যাচ্ছে। তাই বছরটি আরও স্মরণীয় করে রাখতে করোনার সময়ে ক্ষতিগ্রস্থ হল মালিকদের পাশে দাঁড়াতে চায় তারা। সিনেমা প্রদর্শনীর জন্য কোনো অর্থ নিচ্ছে না যশরাজ।

সেইসঙ্গে দর্শকরা যেন আবারো আগের মতো হলে ফেরা শুরু করে তাই টিকিটের দাম করা ৫০ রুপি করতে হল মালিকদের অনুরোধ জানিয়েছে। সেই অনুরোধেই হল মালিকরা দারুণ অফারটি দিয়েছে দর্শকদের।

যশরাজ ফিল্মসের সিনিয়র মার্কেটিং এক্সিকিউটিভ মনির মেহতা সাংবাদিকদের সাথে আলাপকালে জানান, ‘দর্শকদের জন্যই যশরাজ আজ এই জায়গায় এবং আমাদের ৫০তম বছর সকলকে নিয়েই উপভোগ করার পরিকল্পনা ছিল। কিন্তু করোনা অনেক কিছুই ভেস্তে দিয়েছে।

তবে দর্শক আমাদের ক্লাসিক এবং আইকনিক সিনেমাগুলো আবারো বড় পর্দায় উপভোগ করতে পারেবেন। মাত্র ৫০ রুপিতে।’

এদিকে পিভিআর সিনেমা হলের সিইও গৌতম দত্ত গণমাধ্যমকে বলেন, ‘যশরাজ ফিল্মসকে ৫০তম বছরে পদার্পণের জন্য আন্তরিকভাবে অভিনন্দন জানাই। ভারতীয় ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতে যশরাজ ফিল্মসের অবদান অতুলনীয়। আমরা আমাদের দর্শকদের সুরক্ষিত এবং স্বাস্থ্যকর সিনেমা হলে তাদের সবচেয়ে স্মরণীয় সিনেমাগুলো দেখতে আসার জন্য আমন্ত্রণ জানাচ্ছি।’

জানা গেছে, যশরাজ ফিল্মসের প্রদর্শিত আইকনিক সিনেমাগুলোর মধ্যে থাকবে কাভি কাভি, সিলসিলা, দিলওয়ালে দুলহানিয়া লে জায়েঙ্গে, দিল তো পাগল হ্যায়, বীর-জারা, বান্টি অর বাবলি, রব নে বানা দি জোড়ি, এক থা টাইগার, জাব তাক হ্যায় জান, ব্যান্ড বাজা বারাত, সুলতান, মর্দানি, দম লাগা কে হায়শা।
অর্থসংবাদ/এসআর

 

আমরা সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।