Connect with us

ধর্ম ও জীবন

রাত জেগে ইবাদত করার সহজ উপায়

Published

on

লেনদেন

পবিত্র কোরআনুল কারিমে রাত জেগে ইবাদত করাকে মুত্তাকী বান্দাদের বিশেষ গুণ বলা হয়েছে। ইরশাদ হয়েছে,
كَانُوا قَلِيلًا مِّنَ اللَّيْلِ مَا يَهْجَعُونَ

অর্থ: ‘তারা রাত্রির সামান্য অংশেই নিদ্রা যেত’। (সূরা: যারিয়াত, আয়াত: ১৭)

উপরোক্ত আয়াতে মুমিন মুত্তাকীদের এই গুণ বর্ণনা করা হয়েছে যে, তারা মহান রাব্বুল আলামিনের ইবাদতে রাত্রি অতিবাহিত করে, কম নিদ্রা যায় এবং অধিক জাগ্রত থাকে। যারা তাদের রাতসমূহ পাপ-পঙ্কিলতা ও অশ্লীল কাজ-কর্মে ডুবে কাটায় এবং তারপরও মাগফিরাত প্রার্থনা করার চিন্তাটুকু পর্যন্ত তাদের মনে জাগে না এরা তাদের শ্রেণীভুক্ত নয়।

অনেকেই রাত জেগে ইবাদতের চিন্তা করেন কিন্তু পারির্শ্বিক বিভিন্ন কারণে হয়ে উঠে না। এখানে রাত জেগে ইবাদতের কয়েকটি সহজ উপায় সম্পর্কে আলোচনা করা হলো।

রাত জেগে ইবাদত করা:
রাত জেগে ইবাদত করা আল্লাহ তাআলার বিশেষ বান্দাদের গুণ। রাত জেগে তারা আত্মার প্রশান্তি লাভ করেন। অধিক রাত জাগরণের কারণে তারা ক্লান্ত হন না, রাতে নির্বিঘ্নে ইবাদতের পরিবেশ পেতে তারা দিনের বেলা ঘুমিয়ে নেন। প্রথম যুগের বুজুর্গ আলেমদের কেউ কেউ এভাবে সারা রাত জেগে ইবাদত করতেন। তাদের কেউ কেউ এশার ওজুতে ফজর নামাজ পড়তেন।

আবু তালেব মক্কী বর্ণনা করেছেন, ৪০ জন তাবেয়ি এমন ছিলেন যারা সারা রাত জেগে ইবাদত করতেন। তাদের কয়েকজন এমন ছিলেন যে টানা ৪০ বছর এই আমল অব্যহতভাবে করে গেছেন।

অর্ধেক রাত জেগে ইবাদত:
পূর্ববর্তী যুগের বুজুর্গ আলেমদের মধ্যে এমন ইবাদতকারীর অসংখ্য ছিল। এক্ষেত্রে উত্তম হলো রাতের এক তৃতীয়াংশ ও শেষ এক ষষ্ঠাংশ ঘুমিয়ে অতিবাহিত করা। যেন ইবাদত ও জাগরণ মধ্যস্থলে হয়।

রাতের এক তৃতীয়াংশ জেগে ইবাদত করা:
এভাবে যারা ইবাদত করার ইচ্ছা করেন, তাদের জন্য রাতের প্রথমার্ধ এবং এক ষষ্ঠাংশ ঘুমিয়ে কাটানো উত্তম। রাতের শেষ ভাগে কিছুটা ঘুমিয়ে নিলে ফজর নামাজ আদায়ের ক্ষেত্রে সুবিধা হয়। এতে করে ফজরের সময় তন্দ্রা আসে না। এছাড়া রাতের শেষ অংশের ঘুমের কারণে চেহারায় রাত জাগার ছাপ পড়ে না।

রাতের এক ষষ্ঠাংশ বা এক পঞ্চমাংশ জেগে ইবাদত করা:
এক ষষ্ঠাংশ বা এক পঞ্চমাংশ জেগে ইবাদত করেন তাদের জন্য উত্তম হলো রাতের শেষার্ধে জাগা। এর আগে ঘুমিয়ে নেওয়া।

রাতে জেগে ইবাদতের জন্য কোনো সময় নির্ধারণ না করা:
অনেকে রাত জেগে ইবাদত করতে চান। তবে রাত জাগার জন্য তাদের নির্দিষ্ট কোনো সময় নেই। এমন ব্যক্তিদের জন্য প্রথম রাতে ঘুম আসা পর্যন্ত জাগ্রত থাকা এবং এরপর যখন ঘুম ভাঙবে তখন উঠে ইবাদত করা শ্রেয়। আবার প্রবল ঘুম এলে ঘুমিয়ে পড়বেন। এই অবস্থায় এক রাতে দুইবার ঘুমানো ও দুইবার জাগা হবে। এভাবে রাত জেগে ইবাদত করা উত্তম।

রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম এভাবে ইবাদতের জন্য রাত জাগতেন। হজরত ইবনে ওমর ও অন্যান্য সাহাবিরাও এভাবে রাত জাগতেন।

রাসূলুল্লাহ (সা.) এর জাগরণ পরিমাণের দিক থেকে সবসময় একই রকম ছিল না। তিনি কখনো অর্ধেক রাত জাগতেন, কখনো রাতের এক তৃতীয়াংশ, কখনো দুই তৃতীয়াংশ এবং কখনো এক ষষ্ঠাংশ জাগতেন। সূরা মুযযাম্মিলের এক আয়াতে রাসূল (সা.) এর রাত জাগার বিষয়ে বর্ণনা করা হয়েছে। বর্ণিত হয়েছে,

اِنَّ رَبَّکَ یَعۡلَمُ اَنَّکَ تَقُوۡمُ اَدۡنٰی مِنۡ ثُلُثَیِ الَّیۡلِ وَنِصۡفَہٗ وَثُلُثَہٗ وَطَآئِفَۃٌ مِّنَ الَّذِیۡنَ مَعَکَ ؕ  وَاللّٰہُ یُقَدِّرُ الَّیۡلَ وَالنَّہَارَ

অর্থ: ‘নিশ্চয় তোমার রব জানেন যে, তুমি রাতের দুই তৃতীয়াংশের কিছু কম, অথবা অর্ধরাত অথবা রাতের এক তৃতীয়াংশ সালাতে দাঁড়িয়ে থাক এবং তোমার সঙ্গে যারা আছে তাদের মধ্য থেকে একটি দলও। আর আল্লাহ রাত ও দিন নিরূপণ করেন’। (সূরা: মুযযাম্মিল, আয়াত: ২০)

শুধু তাহাজ্জুদ পড়ার জন্য জাগা:
পুরো রাত বা রাতের অর্ধেক অংশ না জেগে শুধু ৪ রাকাত বা ২ রাকাত তাহাজ্জুদ নামাজ পড়ার পরিমাণ সময়ের জন্য রাত জাগা। এটাই রাত জাগরণের সর্বনিম্ন পরিমাণ। রাত জেগে নামাজ পড়ার ক্ষেত্রে কারো কাছে ওজু করা কঠিন মনে হলে তিনি অল্প কিছু সময় জিকির আজকার করে নিতে পারেন।

যাদের জন্য রাত জেগে ইবাদত কঠিন:
যদি মাঝ রাতে ওঠা কঠিন হয় তাহলে মাগরিব ও এশার মাঝের সময় এবং এশার পরবর্তী সময়কে ইবাদতের জন্য কাজে লাগানো উচিত। এ সময় নফল নামাজ, জিকির, আজকারে কাটানো উচিত। এমন ব্যক্তি রাতে ইবাদতের জন্য জাগতে পারেন না। তবে তার জন্য সুবহে সাদিকের আগে উঠা এবং ফজর নামাজ জামাতে আদায় করা জরুরি। এভাবে রাতের উভয় প্রান্তে জাগরণ ও ইবাদতের ফজিলত পাওয়া যাবে।

উসমান ইবনু আফফান রাদিয়াল্লাহু তাআলা আনহু বলেন, রাসূলুল্লাহ বলেছেন, যে ব্যক্তি এশার নামাজ জামাতের সঙ্গে আদায় করে তার জন্য অর্ধরাত (নফল) নামাজ আদায়ের সওয়াব রয়েছে। যে ব্যক্তি এশা ও ফজরের নামাজ জামাতের সঙ্গে আদায় করে তার জন্য সারা রাত (নফল) নামাজ আদায়ের সমপরিমাণ সওয়াব রয়েছে। (তিরমিজি, হাদিস, ২২১)

শেয়ার করুন:-
অর্থসংবাদে প্রকাশিত কোনো সংবাদ বা কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

ধর্ম ও জীবন

অবৈধভাবে উপার্জিত টাকা দান করলে সওয়াব হবে?

Published

on

লেনদেন

উপার্জনের ক্ষেত্রে ইসলাম সবসময় হালাল-হারামে গুরুত্ব দিতে বলেছে। কারণ, হারাম পন্থায় উপার্জন করলে বরকত নষ্ট হয়ে যায়। যার উপার্জন হারাম তার সারা জীবনই ধ্বংসের মুখে। কারণ, তার খাবার-দাবার, পোশাক সবই হারাম উপার্জনের এমনকি সন্তান-সন্ততির শরীরও হারাম খাবারে পূর্ণ। এক কথায় তার পুরো জীবন প্রতিষ্ঠিত হারামের ওপর। এমন ব্যক্তি অঢেল সম্পদ উর্পাজন করলেও বরকত থেকে বঞ্চিত। আল্লাহর রহমত থেকে বিতাড়িত।

তাই হালাল উপার্জনে গুরুত্ব দিতে হবে। কারণ, এতে রয়েছে বরকত। রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন, যে ব্যক্তি সৎ পন্থায় সম্পদ উপার্জন করে থাকে তাকে এর মধ্যে বরকত দেওয়া হয়। (মুসলিম, হাদিস, ২৩১১)

হালাল রিজিক অনুসন্ধান করা আবশ্যক। রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম ইরশাদ করেন, অন্যান্য ফরজ কাজ আদায়ের সঙ্গে হালাল রুজি-রোজগারের ব্যবস্থা গ্রহণ করাও একটি ফরজ।’ (বায়হাকী, হাদিস, ৪৬০)।

অপর এক হাদিসে মহানবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেন, আল্লাহ তায়ালা কেবল পবিত্র বস্তুই কবুল করেন। যে ব্যক্তি হালাল উপার্জন থেকে এক মুষ্টি খেজুরও দান করে, আল্লাহ তা নিজ হাতে গ্রহণ করেন। এরপর তা ওই ব্যক্তির জন্য পরিচর্যা করতে থাকেন- যেমন তোমাদের কেউ উটের বাচ্চার পরিচর্যা করে। ওই সামান্য পরিমাণ খেজুর বাড়তে বাড়তে এক সময় পাহাড় পরিমাণ হয়ে যায়। (বুখারি, হাদিস, ১৪১০; মুসলিম, হাদিস, ১০১৪)

হাদিসের মাধ্যমে এ বিষয়টি স্পষ্ট যে, ইসলামে হারামে উপায়ে উপার্জনের কোনো স্থান নেই এবং একে বৈধতা দেওয়ার কোনো উপায় নেই। তবে কেউ যদি অবৈধভাবে উপার্জন করে ফেলে তাহলে তার জন্য এই সম্পদ নিজের কাছে রাখার অনুমতি নেই; প্রকৃত হকদারের কাছে পৌঁছে দিতে হবে। হকদারের খোঁজ না পেলে তা দান-সদকার নিয়ত না করে জনকল্যাণে ব্যয় করে দিতে হবে। এতে ওই ব্যক্তির কোনো সওয়াব হবে না। কারণ অবৈধ আয়ে ভালো কাজ করলে তা আল্লাহর কাছে গ্রহণযোগ্য হয় না। রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম ইরশাদ করেন, আল্লাহ তায়ালা পবিত্রতা ছাড়া নামাজ কবুল করেন না এবং আত্মসাৎকৃত সম্পদের সদকা কবুল করেন না। (মুসলিম, হাদিস, ২২৪; তিরমিজি, হাদিস, ০১; নাসায়ি, হাদিস, ১৩৯)

ইবনে মাসউদ রাদিয়াল্লাহু তায়ালা আনহু বলেন, বান্দা হারাম পথে উপার্জন করবে, এরপর তা থেকে আল্লাহর পথে খরচ করবে এবং তাতে বরকত দেওয়া হবে বা সে তা থেকে সদকা করবে এবং তা কবুল করা হবে- এমন ধারণা অমূলক। বরং ওই ব্যক্তি মৃত্যুর পর সেই সম্পদ রেখে গেলে তা তাকে আরও বেশি জাহান্নামের দিকে নিয়ে যাবে। (আহমাদ, হাদিস, ৩৬৭২; বাজ্জার, হাদিস, ২০২৬)

অন্য এক হাদিসে এসেছে, আবু হুরায়রা রাদিয়াল্লাহু তায়ালা আনহু থেকে বর্ণিত, রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম এরশাদ করেন, যে ব্যক্তি হারাম উপার্জন করবে, এরপর তা সদকা করবে- সেই সদকায় কোনো সওয়াব হবে না; বরং অবৈধ উপার্জনের গুনাহের বোঝা তার ঘাড়ে চেপেই থাকবে। (ইবনে হিব্বান, হাদিস, ৩২১৬; হাকিম, হাদিস, ১৪৪০)

শেয়ার করুন:-
অর্থসংবাদে প্রকাশিত কোনো সংবাদ বা কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
পুরো সংবাদটি পড়ুন

ধর্ম ও জীবন

হারাম উপার্জন দান করা নিয়ে যা বলেছে ইসলাম

Published

on

লেনদেন

মহান আল্লাহ মানুষ সৃষ্টি করেছেন। দিয়েছেন সুন্দরতম অবয়ব। শিক্ষা দিয়েছেন হালাল-হারাম পথ। বলে দিয়েছেন, হালাল পথে রয়েছে, অফুরন্ত জান্নাতের নেয়ামত। আর হারাম উপার্জনে রয়েছে, জাহান্নামের মর্মন্তুদ শাস্তি। ইসলামে হালাল উপার্জনের গুরুত্ব অপরিসীম। ইসলামি শরিয়তের দিকনির্দেশনা হলো হালাল পথে জীবিকা উপার্জন করা।

অন্যায়, অবৈধ পন্থায় সব উপার্জন হারাম। সুদ-ঘুষ, চুরি-ডাকাতি, রাহাজানি, ছিনতাই, জুয়া, মিথ্যাচার, চাঁদাবাজি, জবরদখল, যৌতুক, প্রতারণা ও প্রশ্নফাঁসসহ যাবতীয় অসামাজিক অনাচারে লিপ্ত হয়ে জীবিকা উপার্জন করা হারাম। এসব পন্থায় উপার্জন করার ব্যাপারে মহান আল্লাহ নিষেধ করে বলেন, তোমরা নিজেদের মধ্যে একে অন্যের সম্পদ অবৈধ পন্থায় গ্রাস কোরো না এবং মানুষের ধনসম্পত্তির কিয়দাংশ জেনে-শুনে অন্যায়ভাবে গ্রাস করার উদ্দেশ্যে তা বিচারকদের কাছে নিয়ে যেয়ো না। (সুরা বাকারা, আয়াত: ১৮৮)

জীবন চলার পথে সুখ-দুঃখ আসবে। তবে সব সময় হালাল পথেই চলতে হবে। এ প্রসঙ্গে মহান আল্লাহ বলেন, হে ঈমানদাররা! তোমরা পবিত্র বস্তু আহার করো, যেগুলো আমি তোমাদের রিজিক হিসেবে দান করেছি এবং আল্লাহর শুকরিয়া আদায় করো, যদি তোমরা একমাত্র তারই ইবাদত করে থাকো। (সুরা বাকারা, আয়াত: ১৭২)

হারাম উপার্জন থেকে দান করে নেকির আশা করাটাও গুনাহের কাজ। অনেকের ধারণা অবৈধ উপার্জন করে কিছু দান করে দিলে আর হজ সম্পাদন করলে সব সম্পদ বৈধ হয়ে যায়! অথচ বিষয়টি মোটেও সত্য নয় । অবৈধ উপার্জনের জন্য অবশ্যই কিয়ামতের দিন জবাবদিহির সম্মুখীন হতে হবে।

নবীজি সল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেন, কিয়ামতের দিনে কোনো মানুষ নিজের স্থান থেকে এক বিন্দুও সরতে পারবে না, যতক্ষণ না তার কাছ থেকে চারটি প্রশ্নের উত্তর নিয়ে নেয়া হবে। তন্মধ্যে একটি প্রশ্ন হচ্ছে, নিজের ধন-সম্পদ কোথা থেকে উপার্জন করেছে এবং কোথায় ব্যয় করেছে? (তিরমিজি: ২৪১৭)

এমআই

শেয়ার করুন:-
অর্থসংবাদে প্রকাশিত কোনো সংবাদ বা কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
পুরো সংবাদটি পড়ুন

ধর্ম ও জীবন

হজ পালনে সৌদির আবাসন নিবন্ধন শুরু

Published

on

লেনদেন

আগামী বছরের জন্য হজের প্রস্তুতি শুরু করেছে সৌদি আরব। দেশটি জানিয়েছে, আজ থেকে মদিনায় হাজিদের জন্য আবাসন নিবন্ধন শুরু হবে। শনিবার (০৬ জুলাই) গালফ নিউজের এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

হাজিদের আবাসন সংক্রান্ত সৌদি কমিটি জানিয়েছে, রোববার থেকে মদিনায় আবাসনের অনুমতির জন্য আবেদন গ্রহণ করা শুরু হবে। আগামী বছর হজের প্রস্তুতির অংশ হিসেবে এ কার্যক্রম শুরু হয়েছে।

গালফ নিউজ জানিয়েছে, আবাসন সংক্রান্ত এ কমিটি জমির মালিক ও বিনিয়োগকারীদেরকে হাজিদের আবাসন সংক্রান্ত অনুমোদনের জন্য সকল শর্ত ও মানদণ্ড পূরণের জন্য আহ্বান জানিয়েছে। রেজিস্ট্রেশন চলাকালে সকল প্রক্রিয়া নিশ্চিত করার জন্য বলা হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, রোববার তথা আরবি হিজরি ১৪৪৬ ক্যালেন্ডারের প্রথম দিন থেকে এ সব প্রক্রিয়া শুরু হবে, যা রজব মাসের শেষ তারিখ পর্যন্ত চলবে। এ মাসটি আরবি ক্যালেন্ডারের অষ্টম মাস।

সৌদি আরব জানিয়েছে, সদ্য সমাপ্ত হজের মৌসুমে সারাবিশ্ব থেকে ১৮ লাখ মুসল্লি হজ পালন করেছেন। এ সব মুসল্লিদের মধ্যে ১৬ লাখই সৌদির বাইরে বিভিন্ন দেশের নাগরিক। এ ছাড়া এবছর হজের মৌসুমে রেকর্ডসংখ্যক হজযাত্রীর মৃত্যু হয়েছে বলেও জানিয়েছে তারা। এজন্য বৈধভাবে হজের ভিসা ও অনুমোদনহীন ভ্রমণ বন্ধ করার ওপর জোর দিয়েছে কর্তৃপক্ষ।

এমআই

শেয়ার করুন:-
অর্থসংবাদে প্রকাশিত কোনো সংবাদ বা কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
পুরো সংবাদটি পড়ুন

জাতীয়

পবিত্র আশুরা ১৭ জুলাই

Published

on

লেনদেন

বাংলাদেশের আকাশে শনিবার (৬ জুলাই) সন্ধ্যায় পবিত্র মহররম মাসের চাঁদ দেখা যায়নি। সোমবার (৮ জুলাই) শুরু হচ্ছে মহররম মাস ও নতুন বছর ১৪৪৬ হিজরি। আগামী ১৭ জুলাই বুধবার (১০ মহররম) দেশে পবিত্র আশুরা পালিত হবে।

রাজধানীর বায়তুল মোকাররমে ইসলামিক ফাউন্ডেশনের সভাকক্ষে শনিবার সন্ধ্যায় জাতীয় চাঁদ দেখা কমিটির সভায় এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। সভায় সভাপতিত্ব করেন ধর্মবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মু.আ. আউয়াল হাওলাদার।

সভায় অতিরিক্ত সচিব জানান, সব জেলা প্রশাসন, ইসলামিক ফাউন্ডেশনের প্রধান কার্যালয়, বিভাগীয় ও জেলা কার্যালয়, বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদপ্তর, মহাকাশ গবেষণা কেন্দ্র ও দূর অনুধাবন কেন্দ্র থেকে প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী বাংলাদেশের আকাশে কোথাও হিজরি ১৪৪৬ সনের মহররম মাসের চাঁদ দেখা যায়নি। রোববার (৭ জুলাই) জিলহজ মাসের ৩০ দিন পূর্ণ হবে। সোমবার থেকে মহররম মাস গণনা শুরু হবে। আগামী ১৭ জুলাই (১০ মহররম) বুধবার দেশে পবিত্র আশুরা পালিত হবে।

হিজরি সনের প্রথম মাস হচ্ছে মহররম। আশুরার দিন দেশে নির্বাহী আদেশে সরকারি ছুটি থাকে। শিয়ারা বিশেষভাবে আশুরা পালন করে থাকেন।

কারবালা প্রান্তরে হযরত মুহাম্মদ (স.) এর দৌহিত্র হযরত ইমাম হোসেন (রা.) এর শাহাদতবরণের শোকাবহ ঘটনাকে কেন্দ্র করে মূলত আমাদের দেশে আশুরা উদযাপিত হয়। তবে ইসলামের ইতিহাসে পবিত্র আশুরা আরও কিছু তাৎপর্যময় ঘটনায় উজ্জ্বল হয়ে আছে। আশুরার রোজা (আশুরার দিন এবং আগে বা পরে একদিন) রাখার বিষয়ে বিশেষ ফজিলতের কথা বলা হয়েছে হাদিসে।

আশুরার দিনে ফেরাউনের হাত থেকে নবী মূসা (আ.) ও তার অনুসারীদের মুক্তি পাওয়া ছাড়া আর কোনো ঘটনা সহীহ হাদীস দ্বারা প্রমাণিত নয়। আশুরার দিনে হযরত আদমের (আ.) তাওবা কবুল, মহাপ্লাবনের পর নূহ (আ.) এর নৌকা জুদী পর্বতের ওপর থামা ও ঈসা (আ.) জন্মগ্রহণ করার কথা অনির্ভরযোগ্য সূত্রে কোন কোন সাহাবী-তাবিই থেকে বর্ণিত।

শেয়ার করুন:-
অর্থসংবাদে প্রকাশিত কোনো সংবাদ বা কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
পুরো সংবাদটি পড়ুন

ধর্ম ও জীবন

পবিত্র আশুরা কবে, জানা যাবে সন্ধ্যায়

Published

on

লেনদেন

১৪৪৬ হিজরি সনের পবিত্র মহররম মাসের চাঁদ দেখা এবং পবিত্র আশুরার তারিখ নির্ধারণের লক্ষ্যে জাতীয় চাঁদ দেখা কমিটির সভা অনুষ্ঠিত হবে শনিবার (৬ জুলাই)। সন্ধ্যা ৭টা ১৫ মিনিটে ইসলামিক ফাউন্ডেশনের বায়তুল মোকাররম সভাকক্ষে অনুষ্ঠিত হবে। সভায় সভাপতিত্ব করবেন ধর্মমন্ত্রী মো. ফরিদুল হক খান।

শনিবার (৬ জুলাই) মহররম মাসের চাঁদ দেখা গেলে জিলহজ মাস ২৯ দিনের হবে এবং রোববার (৭ জুলাই) মহররম মাস শুরু হবে। সে ক্ষেত্রে আগামী ১৬ জুলাই আশুরা হবে। আর শনিবার মহররমের চাঁদ দেখা না গেলে জিলহজ মাস ৩০ দিনে পূর্ণ হবে এবং আগামী সোমবার থেকে মহররম মাস শুরু হবে। এ ক্ষেত্রে ১৭ জুলাই আশুরা হবে।

বাংলাদেশের আকাশে কোথাও মহররম মাসের চাঁদ দেখা গেলে তা ০২-২২৩৩৮১৭২৫, ০২-৪১০৫০৯১২, ০২-৪১০৫০৯১৬, ০২-৪১০৫০৯১৭ টেলিফোন ও ০২-২২৩৩৮৩৩৯৭, ০২-৯৫৫৫৯৫১ ফ্যাক্স নম্বরে বা সংশ্লিষ্ট জেলার জেলা প্রশাসক (ডিসি) বা উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে (ইউএনও) জানানোর অনুরোধ জানিয়েছে ইসলামিক ফাউন্ডেশন।

কাফি

শেয়ার করুন:-
অর্থসংবাদে প্রকাশিত কোনো সংবাদ বা কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
পুরো সংবাদটি পড়ুন

শেয়ারবাজারের সর্বশেষ

লেনদেন লেনদেন
পুঁজিবাজার10 hours ago

শেয়ারবাজারে লেনদেন বেড়েছে ৪৪ শতাংশ

দেশের প্রধান পুঁজিবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) বিদায়ী সপ্তাহে (৭ জুলাই থেকে ১১ জুলাই) গড় লেনদেন ৪৪ শতাংশের বেশি বেড়েছে।...

লেনদেন লেনদেন
পুঁজিবাজার10 hours ago

লংকাবাংলা সিকিউরিটিজ কর্মীদের প্রশিক্ষণ দিল বিআইসিএম

বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ক্যাপিটাল মার্কেট (বিআইসিএম) কর্তৃক ৪ দিন ব্যাপী পুঁজিবাজার বিষয়ক কর্মশালার আয়োজন করা হয়েছে। কর্মশালায় বিআইসিএম কর্তৃক লংকাবাংলা...

লেনদেন লেনদেন
পুঁজিবাজার12 hours ago

উত্তরা ফাইন্যান্সের এমডির পদত্যাগ

পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত আর্থিক প্রতিষ্ঠান উত্তরা ফাইন্যান্স অ্যান্ড ইনভেস্টমেন্টের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) সৈয়দ মিনহাজ আহমেদ পদত্যাগ করেছেন। কোম্পানি সূত্রে জানা গেছে,...

লেনদেন লেনদেন
পুঁজিবাজার2 days ago

ব্লকে ৩৫ কোটি টাকার লেনদেন

সপ্তাহের শেষ কার্যদিবসে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) ব্লকে মোট ৪৮টি কোম্পানির শেয়ার ও ইউনিট হাতবদল হয়েছে। তাতে কোম্পানিগুলোর মোট লেনদেন...

লেনদেন লেনদেন
পুঁজিবাজার2 days ago

টেকনো ড্রাগসের লেনদেন শুরু ১৪ জুলাই

পুঁজিবাজারে মূল প্ল্যাটফর্মে তালিকাভুক্ত হতে যাওয়া নতুন কোম্পানি টেকনো ড্রাগস লিমিটেডের শেয়ারের লেনদেন আগামী রোববার (১৪ জুলাই) থেকে শুরু হবে।...

লেনদেন লেনদেন
পুঁজিবাজার2 days ago

প্রিমিয়ার ব্যাংকের নগদ লভ্যাংশ বিতরণ

পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত প্রিমিয়ার ব্যাংক পিএলসি গত ৩১ ডিসেম্বর,২০২৩ সমাপ্ত হিসাববছরে জন্য ঘোষিত লভ্যাংশ বিনিয়োগকারীদের কাছে পাঠিয়েছে। ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই)...

লেনদেন লেনদেন
পুঁজিবাজার2 days ago

সিটি ইন্স্যুরেন্সের নাম সংশোধনে ডিএসইর সম্মতি

পুঁজিবাজারে বিমা খাতে তালিকাভুক্ত সিটি জেনারেল ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি লিমিটেডের নাম সংশোধনে সম্মতি দিয়েছে দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই)...

লেনদেন লেনদেন
পুঁজিবাজার2 days ago

বিবিএস ক্যাবলসের সর্বোচ্চ দরপতন

সপ্তাহের শেষ কার্যদিবসে দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) লেনদেনে অংশ নেওয়া ৩৯৭টি কোম্পানির মধ্যে ৩৪৩ কোম্পানির শেয়ারদর কমেছে।...

লেনদেন লেনদেন
পুঁজিবাজার2 days ago

দরবৃদ্ধির শীর্ষে গ্লোবাল হেভি কেমিক্যাল

সপ্তাহের শেষ কার্যদিবসে দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) লেনদেনে অংশ নেওয়া ৩৯৭ কোম্পানির মধ্যে ৩৬টির শেয়ারদর বৃদ্ধি পেয়েছে।...

লেনদেন লেনদেন
পুঁজিবাজার2 days ago

লেনদেনের শীর্ষে সি পার্ল

সপ্তাহের শেষ কার্যদিবসে দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) ৩৯৭টি কোম্পানির শেয়ার ও ইউনিট হাতবদল হয়েছে। এদিন লেনদেনের শীর্ষে...

লেনদেন লেনদেন
পুঁজিবাজার2 days ago

সপ্তাহের শেষ কার্যদিবসে ৬১ পয়েন্ট হারালো ডিএসই

সপ্তাহের শেষ কার্যদিবসে দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) মূল্যসূচকের নিম্নগতিতে লেনদেন শেষ হয়েছে। একইসাথে আগের কার্যদিবসের তুলনায় এদিন...

লেনদেন লেনদেন
পুঁজিবাজার2 days ago

দুই ঘন্টায় লেনদেন ৩২৬ কোটি টাকা

সপ্তাহের শেষ কার্যদিবসে দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) মূল্য সূচকের নিম্নমুখী প্রবণতায় লেনদেন চলছে। এদিন প্রথম দুই ঘন্টায়...

লেনদেন লেনদেন
পুঁজিবাজার2 days ago

সাউথইস্ট ব্যাংক পারপেচুয়াল বন্ডের ক্রেডিট রেটিং সম্পন্ন

পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত কোম্পানি সাউথইস্ট ব্যাংক ফার্স্ট পারপেচুয়াল বন্ডের ক্রেডিট রেটিং সম্পন্ন করা হয়েছে। ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) সূত্রে এ তথ্য...

লেনদেন লেনদেন
পুঁজিবাজার2 days ago

গোল্ডেন জুবিলির ৬০ লাখ ইউনিট বেচবে আইসিবি

পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত আইসিবি এএমসিএল সিএমএসএফ গোল্ডেন জুবিলি মিউচুয়াল ফান্ডের ৬০ লাখ ইউনিট বিক্রির ঘোষণা দিয়েছে ফান্ডটির স্পন্সর আইসিবি অ্যাসেট ম্যানেজমেন্ট...

লেনদেন লেনদেন
পুঁজিবাজার2 days ago

পর্ষদ সভা করবে সেনাকল্যাণ ইন্স্যুরেন্স

পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত সেনাকল্যাণ ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি লিমিটেড পর্ষদ সভার তারিখ ঘোষণা করেছে। আগামী ১৫ জুলাই দুপুর ২ টা ৪৫ মিনিটে কোম্পানিটির...

লেনদেন লেনদেন
পুঁজিবাজার2 days ago

ইন্ট্রাকো ও চীনের শিঝুয়াং এনরিকের মধ্যে ২০ মিলিয়ন ডলারের চুক্তি

স্থল ও জল পথে সিএনজি পরিবহনে কারিগরি ও আর্থিক বিনিয়োগ খাতে ২০ মিলিয়ন ডলার বিনিয়োগের একটি সমঝোতা স্মারক সই হয়েছে...

লেনদেন লেনদেন
পুঁজিবাজার2 days ago

টেকসই রেটিংয়ে শীর্ষ ১০ ব্যাংকই পুঁজিবাজারের

টেকসই রেটিংয়ে বেসরকারি খাতের ১০ ব্যাংক ও তিন আর্থিক প্র‌তিষ্ঠান‌কে ভালো মর্যাদা দিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক। আর ১০ ব্যাংকই পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত...

লেনদেন লেনদেন
পুঁজিবাজার2 days ago

পুঁজিবাজার উন্নত করতে সু-শাসনের বিকল্প নেই: ডিএসই চেয়ারম্যান

বাংলাদেশের পুঁজিবাজারকে উন্নত করার জন্য সু-শাসনের কোন বিকল্প নেই বলে মন্তব্য করেছেন ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. হাফিজ...

লেনদেন লেনদেন
পুঁজিবাজার3 days ago

ব্লকে ৪৪ কোটি টাকার লেনদেন

সপ্তাহের চতুর্থ কার্যদিবসে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) ব্লকে ৪৬টি কোম্পানির মোট ৪৪ কোটি ৩০ লাখ ৩৪ হাজার টাকার শেয়ার লেনদেন...

লেনদেন লেনদেন
পুঁজিবাজার3 days ago

পর্ষদ সভার তারিখ জানালো গ্রামীণফোন

পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত কোম্পানি গ্রামীণফোন লিমিটেড পর্ষদ সভার তারিখ ঘোষণা করেছে। আগামী ১৬ জুলাই বিকাল ৩টায় কোম্পানিটির পর্ষদ সভা অনুষ্ঠিত হবে।...

Advertisement

ফেসবুকে অর্থসংবাদ

লেনদেন
খেলাধুলা6 hours ago

২১ বছরের ক্যারিয়ার শেষে যা বললেন অ্যান্ডারসন

লেনদেন
অর্থনীতি6 hours ago

কোমল পানীয় খাতে রাজস্ব কমেছে ২০.৯ শতাংশ

লেনদেন
অর্থনীতি7 hours ago

সার্কভুক্ত দেশে স্থানীয় মুদ্রা বাণিজ্যে অর্থনীতি শক্তিশালী হবে: গভর্নর

লেনদেন
লাইফস্টাইল7 hours ago

ডায়াবেটিসের ‘যম’ দারুহরিদ্রার যত গুণ

লেনদেন
জাতীয়7 hours ago

রাজধানীতে গ্যাস সরবরাহ বেড়েছে, জ্বলছে চুলা

লেনদেন
ক্যাম্পাস টু ক্যারিয়ার8 hours ago

যমুনা ইলেক্ট্রনিক্সে ম্যানেজার পদে ৩০ জনের চাকরির সুযোগ

লেনদেন
আবহাওয়া8 hours ago

রাতেই ৭ অঞ্চলে ৬০ কিমি বেগে ঝড়ের আভাস

লেনদেন
জাতীয়9 hours ago

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন শুরুর ব্যাপারে ইতিবাচক মিয়ানমার

লেনদেন
জাতীয়9 hours ago

নরেন্দ্র মো‌দির সাক্ষাৎ পেলেন হাছান মাহমুদ

লেনদেন
জাতীয়10 hours ago

জুনে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৬৪২ জন

লেনদেন
পুঁজিবাজার10 hours ago

শেয়ারবাজারে লেনদেন বেড়েছে ৪৪ শতাংশ

লেনদেন
কর্পোরেট সংবাদ10 hours ago

ওয়ালটন-ক্র্যাব স্পোর্টস ফেস্টিভ্যাল শুরু

লেনদেন
কর্পোরেট সংবাদ10 hours ago

সিএমএসএমই খাতের তহবিল সম্পর্কে এনআরবিসি ব্যাংকের সভা

লেনদেন
পুঁজিবাজার10 hours ago

লংকাবাংলা সিকিউরিটিজ কর্মীদের প্রশিক্ষণ দিল বিআইসিএম

লেনদেন
আন্তর্জাতিক11 hours ago

আস্থাভোটে হেরে ক্ষমতাচ্যুত নেপালের প্রধানমন্ত্রী

লেনদেন
খেলাধুলা11 hours ago

বড় জয়ে বিদায় রাঙালো অ্যান্ডারসন

লেনদেন
অর্থনীতি11 hours ago

১৮১ কোটি টাকা বরাদ্দ পেলো ইসলামি আরবি বিশ্ববিদ্যালয়

লেনদেন
অর্থনীতি11 hours ago

গোল্ড ডিলিং লাইসেন্স আইনের সংস্কার চায় বাজুস

লেনদেন
অর্থনীতি12 hours ago

দেশের সার্বিক অর্থনৈতিক চিত্র জানা যাবে প্রতি মাসেই

লেনদেন
ক্যাম্পাস টু ক্যারিয়ার12 hours ago

ঢাবির হলে হলে পানি, ভোগান্তিতে শিক্ষার্থীরা

লেনদেন
জাতীয়12 hours ago

কোটা আন্দোলনকারীদের শাহবাগে অবস্থান

লেনদেন
জাতীয়12 hours ago

দক্ষতা প্রশিক্ষণ পরিবীক্ষণ নির্দেশিকা জারি

লেনদেন
পুঁজিবাজার12 hours ago

উত্তরা ফাইন্যান্সের এমডির পদত্যাগ

লেনদেন
সারাদেশ12 hours ago

বেনজিরের স্ত্রীর ঘের থেকে মাছ চুরি, গ্রেফতার ৩

লেনদেন
জাতীয়13 hours ago

নতুন কোচ পেলো মহানগর এক্সপ্রেস

২০১৮ সাল থেকে ২০২৩

অর্থসংবাদ আর্কাইভ

তারিখ অনুযায়ী সংবাদ

রবি সোম মঙ্গল বু বৃহ শুক্র শনি
 
১০১১১৩
১৫১৬১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
৩০৩১