Connect with us

টেলিকম ও প্রযুক্তি

স্টার্টআপ থেকে ৫ কোটি ডলার বিনিয়োগ পেল শেয়ারট্রিপ

Published

on

স্টার্টআপ

পর্যটন খাতে প্রভাবশালী ভূমিকা পালন এবং শেয়ারট্রিপকে ডিজিটালাইজড করতে প্রতিষ্ঠানটিতে ৫ কোটি মার্কিন ডলার বিনিয়োগ করেছে স্টার্টআপ বাংলাদেশ।

রোববার (৭ আগস্ট) রাজধানীর হোটেল শেরাটনে প্রতিষ্ঠানটির তৃতীয়বার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে বিনিয়োগের ঘোষণা দেওয়া হয়।

এছাড়াও অনুষ্ঠানে শেয়ারট্রিপের ভ্রমণ ও পর্যটন সম্পর্কিত অংশীদার প্রতিষ্ঠানগুলোকে ২০২০-২০২১ সালে সার্বিক সহায়তা ও নানা ক্ষেত্রে অবদান রাখার জন্য সৌহার্দ্যপূর্ণ আংশিদারিত্বের প্রতীক স্বরূপ পুরস্কারের মাধ্যমে সম্মানিত করেছে।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন স্টার্টআপ বাংলাদেশের ব্যবস্থাপনা পরিচালক সামি আহমেদ।

এছাড়া অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন শেয়ারট্রিপের সহ-প্রতিষ্ঠাতা ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা সাদিয়া হক এবং প্রতিষ্ঠানটির প্রতিষ্ঠাতা কাশেফ রহমান।

এ অনুষ্ঠানের মাধ্যমে শেয়ারট্রিপের অংশীদার প্রতিষ্ঠানদের প্রচেষ্টাকে স্বীকৃতি জানাতে বিভিন্ন বিভাগে পুরস্কার দেওয়া হয়। যেমন- এক্সেমপ্লারি পারফর্মিং এয়ারলাইন ইন সাউথ এশিয়া, সাউথ-ইস্ট এশিয়া, আমেরিকাস, ইউরোপ, ওশেনিয়া, মিডল ইস্ট ও সেন্ট্রাল এশিয়া, এশিয়া রিজিওনস এবং বাংলাদেশ, লিডিং ক্যাম্পেইন পার্টনার, লিডিং ট্র্যানজাকশন পার্টনার, বেস্ট কমার্শিয়াল পার্টনার, বেস্ট পারফর্মিং এজেন্ট সহ আরও অন্যান্য অনেক বিভাগ।

এছাড়াও গ্রাহকদের পছন্দ জানার জন্য তিন দিনব্যাপী পরিচালিত এক জরিপে দশ হাজারেরও বেশি মতামতের ভিত্তিতে শেয়ারট্রিপ পিপলস চয়েস এয়ারলাইন এবং পিপলস চয়েস হোটেল খাতে স্বীকৃতি দেওয়া হয়।

আইসিটি বিভাগের ফ্ল্যাগশিপ ভেঞ্চার ক্যাপিটাল প্রতিষ্ঠান স্টার্টআপ বাংলাদেশ লিমিটেড বাংলাদেশের শীর্ষস্থানীয় এ ওটিএ প্রতিষ্ঠানে বিনিয়োগ করে এবং শেয়ারট্রিপ-ই দেশের প্রথম পর্যটন খাতে বিনিয়োগকৃত প্রতিষ্ঠান হিসেবে স্বীকৃতি পায়। পর্যটন খাতের সব ক্ষেত্রে এ ওটিএ যাতে এগিয়ে যেতে পারে, তাই শেয়ারট্রিপে কৌশলগত এ বিনিয়োগ করা হয়। শেয়ারট্রিপের লক্ষ্য পর্যটন খাতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখা এবং উন্নয়নকে ডিজিটালাইজড খাতে রূপান্তর করা।

অনুষ্ঠানে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (আইসিটি) বিভাগের প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন, অনলাইন ট্রাভেল এজেন্সির মধ্যে শীর্ষে থাকায় আমি শেয়ারট্রিপকে অভিনন্দন জানাই৷ করোনার মধ্যেও তারা যেভাবে তাদের ব্যবসার প্রসার ঘটিয়েছে তা সত্যিই প্রশংসিত। কর্মদক্ষতার মাধ্যমে তারা ইতোমধ্যে অনলাইন ট্রাভেল এজেন্সির ৫০ শতাংশের বেশি মার্কেট শেয়ার নিয়েছে।

তিনি আরও বলেন, শেয়ারট্রিপ বাংলাদেশের সেরা একটি অ্যাপ তৈরি করেছে। আমি এই অ্যাপ ডাউনলোড করেছি, আমি চাই আপনারাও এই অ্যাপটি ডাউনলোড করুন।

স্টার্টআপ বাংলাদেশ লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক সামি আহমেদ বলেন, আমি স্টার্টআপ বাংলাদেশের পরিবারে অন্তর্ভুক্তির জন্য শেয়ারট্রিপকে অভিনন্দন জানাই। আমি নিশ্চিত তারা বিশ্বেরসেরা ওটিএতে পরিণত হবে।

শেয়ারট্রিপ জানায়, দেশজুড়ে ৫ লাখেরও বেশি গ্রাহকদের সেবা দিয়েছে শেয়ারট্রিপ। ৫ হাজারেরও বেশি এজেন্ট ব্র্যান্ডটির জন্য কাজ করে, যা অ্যাকসেস টু ইনফরমেশন (এটুআই) ডিজিটাল সেন্টারের মাধ্যমে প্রত্যন্ত অঞ্চলে ভ্রমণকে আরও সহজ করে তোলে। শেয়ারট্রিপ বিশ্বাস করে, দেশে এখনও ডিজিটাইজেশনের বিশাল
সুযোগ আছে।

শেয়ার করুন:

টেলিকম ও প্রযুক্তি

ফ্রিল্যান্সারদের মাধ্যমে রপ্তানি আয় দেড় বিলিয়ন ডলার: পলক

Published

on

স্টার্টআপ

তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (আইসিটি) প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন, ইন্টারনেটের শক্তি আর তারুণ্যের মেধাকে একত্রিত করে বঙ্গবন্ধুর দৌহিত্র ও প্রধানমন্ত্রীর ছেলে সজীব ওয়াজেদ জয় বাংলাদেশের আইটি ফ্রিল্যান্সারদের আত্মকর্মসংস্থানের সুযোগ করে দিয়েছেন।

‘নাটোরের বাগাতিপাড়ার ফয়সাল নিজে উদ্যোক্তা হয়ে কয়েকশ তরুণ-তরুণীকে ফ্রিল্যান্সার বানিয়ে তাদের পরিবারে আর্থিক স্বচ্ছলতা এনে দিয়েছেন। তার মতো সাড়ে ছয় লাখ ফ্রিল্যান্সার দেশকে দেড় বিলিয়ন ডলারের রপ্তানি আয় এনে দিয়েছেন।’

শুক্রবার (২৩ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) সেন্টার ফর অ্যাডভ্যান্সড রিসার্স ইন আর্টস অ্যান্ড সোশাল সাইন্স (কারাস) মিলনায়তনে ঢাবির নাটোর জেলা ছাত্রকল্যাণ সমিতির নবীনবরণ ও কৃতি সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধান আলোচকের বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি।

এসময় তিনি আগামী অর্থবছরে ঢাবির সবকটি হলে শেখ রাসেল ডিজিটাল কম্পিউটার ল্যাব স্থাপনের ঘোষণা দেন। সেই সঙ্গে আর্থিকভাবে অস্বচ্ছল মেধাবী শিক্ষার্থীদের একটি করে ল্যাপটপ উপহার দেওয়া হবে বলে জানান।

এসব উপহারের মাধ্যমে ঢাবির শিক্ষার্থীরা স্মার্ট বাংলাদেশের স্মার্ট নাগরিক হবেন বলে প্রত্যাশা ব্যক্ত করেন আইসিটি প্রতিমন্ত্রী।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, ল্যাপটপ আর ইন্টারনেট থাকলেই ঘরে বসে ডলার আয় করা যায়। এজন্য প্রতিবছর আমি ছাত্রকল্যাণ সমিতির মাধ্যমে ন্যূনতম অস্বচ্ছল মেধাবী সাতজনকে একটি করে ল্যাপটপ ও দুজন শিক্ষার্থীকে ২৪ হাজার টাকা করে শিক্ষাবৃত্তি দেবো।

পলক বলেন, দেশে বর্তমানে ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা প্রায় ১৩ কোটি। ২০১০ সালের ১১ নভেম্বর জননেত্রী শেখ হাসিনা ভোলা জেলার চর কুকরি-মুকরিতে যখন ডিজিটাল সেন্টারের উদ্বোধন করেন, তখন দেশে ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা ছিল মাত্র ৫৬ লাখ।

‘প্রতিমাসে এক কোটি মানুষ এসব সেন্টার থেকে সেবা নিচ্ছেন। সাড়ে ছয় লাখ ফ্রিল্যান্সার ঘরে বসেই দেশ-বিদেশে ব্যবসা করছেন। এটাই হলো শেখ হাসিনার ডিজিটাল বাংলাদেশ।’

তিনি বলেন, ইন্টারনেটের কল্যাণে সরকারের কাজে কেউ অসন্তুষ্ট হলে তা জনসম্মুখে প্রকাশ করতে পারেন। আত্মকর্মসংস্থানের জন্য লার্নিং অ্যান্ড আর্নিং উন্নয়ন প্রকল্পের মাধ্যমে ৫৩ হাজার তরুণ-তরুণীকে প্রশিক্ষণ দেওয়া হয়েছে।

৬৪ জেলায় তিন মাসের সার্টিফেকেট কোর্সসহ শেখ কামাল আইটি ট্রেনিং সেন্টার তৈরি করা হচ্ছে। ১১শ কোটি টাকা ব্যয়ে ৪৯৬টি উপজেলা ও জেলাসদরসহ ৫৫৫টি জয় ডিজিটাল সার্ভিস অ্যান্ড এমপ্লয়মেন্ট সেন্টার করা হচ্ছে।

প্রথম পর্যায়ে ২৪৩টি উপজেলার মধ্যে নাটোরেরই রয়েছে সাতটি উপজেলা। শিগগিরই এগুলোর কাজ শুরু হবে। ডিজিটাল বাংলাদেশে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তরুণদের যে সুযোগ করে দিয়েছেন তা কাজে লাগাতে উপস্থিত শিক্ষার্থীদের আহ্বান জানান আইসিটি প্রতিমন্ত্রী।

ঢাবির নাটোর জেলা ছাত্রকল্যাণ সমিতির সভাপতি সাব্বির সরকারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন নাটোর-৪ আসনের সংসদ সদস্য (এমপি) অধ্যাপক মো. আব্দুল কুদ্দুস।

অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ঢাবির সহকারী অধ্যাপক আরিফুল ইসলাম অপু, নাটোর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও নাটোর সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শরিফুল ইসলাম রমজান, বাংলাদেশ যুব মহিলা লীগের সহ-সভাপতি অ্যাডভোকেট কোহেলী কুদ্দুস মুক্তি প্রমুখ।

শেয়ার করুন:
পুরো সংবাদটি পড়ুন

টেলিকম ও প্রযুক্তি

জুম ব্যবহারে যেসব সতর্কতা মানতে হবে

Published

on

স্টার্টআপ

সাইবার অপরাধীরা অতর্কিতে সবখানেই হানা দিচ্ছে। প্রযুক্তির কোনো সাইটই বাদ যাচ্ছে না তাদের কবল থেকে। সব জায়গায় ফাঁদ পেতে অপেক্ষা করছে শিকারের। এমনকি ব্যবহারকারীরাও না জেনেই পা দিচ্ছেন ফাঁদে এবং পড়ছেন বড় ধরনের বিপদে। খোয়াচ্ছেন অর্থ ও সম্মান দুটোই।

এবার জুম অ্যাপেও হ্যাকারদের নজরদারি লক্ষ্য করেছেন ভারতের কম্পিউটার এমার্জেন্সি রেসপন্স টিম। এখনই ব্যবহারকারীদের সতর্ক হওয়ার পরামর্শ দিচ্ছেন তারা। তারা বলছেন, একাধিক সাইবার নিরাপত্তাজনিত সমস্যা রয়েছে এই অ্যাপে। অনেক ক্ষেত্রেই রিমোট সাইবার অ্যাটাকররা ঢুকে পড়ছেন মিটিংয়ে।

হ্যাক করে বিভিন্নভাবে হয়রানি করছেন ব্যবহারকারীদের। তারা ব্যবহারকারীদের থেকে সরাসরি, ভিডিও, অডিও ও ছবির ফাইল চুরি করছেন। ফলে আপনার গোপন ছবি পৌঁছে যাচ্ছে হ্যাকারদের কাছে।

জুমের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, CVE-2022-28758, CVE-2022-28759 ও CVE-2022-28760 এফেক্ট পড়েছে জুমে। এ কারণে দ্রুত জুম অ্যাপ আপডেট করার পরামর্শ দিচ্ছেন তারা। অ্যান্ড্রয়েড বা ডেস্কটপ যেখানেই হোক অ্যাপ আপডেট করুন। যদিও অ্যান্ড্রয়েড ভার্সনেই হ্যাকারদের তৎপরতা লক্ষ্য করা গেছে। বিপদ এড়াতে ডেস্কটপেও আপডেট করুন।

এছাড়া পরিচিত না হলে জুম মিটিং লিংক ওপেন করবেন না। এছাড়াও জুম অ্যাপ নামে কোনো মেইল বা মেসেজ এলে আগে তা ভালোভাবে যাচাই করুন। ব্যক্তিগত কোনো তথ্য শেয়ার করা যাবে না। নিয়মিত ফোন আপডেট দিন।

শেয়ার করুন:
পুরো সংবাদটি পড়ুন

টেলিকম ও প্রযুক্তি

টুইটারে এডিট ফিচার চালু হচ্ছে বুধবার

Published

on

স্টার্টআপ

মাইক্রোব্লগিং সাইট টুইটারে ‘টুইট এডিট ফিচার’ আসছে আগামী বুধবার। এদিন কিছু ব্যবহারকারীর ফিচারটি জন্য উন্মুক্ত করা হবে।

প্রাথমিক পর্যায়ে ব্লু সাবস্ক্রাইবারদের জন্য এই এডিট বাটন নিয়ে আসবে টুইটার। এই ব্লু সাবস্ক্রাইবার সার্ভিস বর্তমানে নিউজিল্যান্ড, কানাডা, অস্ট্রেলিয়া এবং মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে রয়েছে। এই সার্ভিসের সুবিধা হল এখানে অ্যাড-ফ্রি প্রিমিয়াম ফিচার্স পাওয়া যায়।

জানা গেছে, এই ফিচার টুইটের পাশে একটি আইকন, টাইমস্ট্যাম্প এবং লেবেলের মাধ্যমে শো হবে। যা দেখে অন্যরা বুঝতে পারবেন যে, টুইটটি এডিট করা হয়েছে।

পশ্চিমা গণমাধ্যমগুলো বলছে, টুইটার বুধবার থেকে শুরু হওয়া টুইট বাটনের পরীক্ষা শুরু করতে পারে। টুইটার ব্যবহারকারীরা টাইপিং এবং ব্যাকরণগত ত্রুটিগুলো ঠিক করার জন্য বছরের পর বছর ধরে এডিট বাটন নিয়ে আসার দাবি জানাচ্ছিলেন। এই মাসের শুরুর দিকে টুইটার প্রথম একটি অভ্যন্তরীণ দলের সাথে টুইট সম্পাদনা ফিচারের জন্য একটি ছোট পরীক্ষা ঘোষণা করে।

টুইটার জানিয়েছে, তারা জানে যে ব্যবহারকারীরা কীভাবে ফিচারটির অপব্যবহার করতে পারে। তার জন্যই ইচ্ছাকৃতভাবে প্রাথমিক পর্যায়ে কিছু ব্যবহারকারীদের জন্য এই ফিচার উন্মুক্ত করা হচ্ছে। প্রথমে নির্দিষ্ট একটি দেশে এটি চালু করা হবে, কীভাবে ব্যবহারকারীরা বিষয়টি গ্রহণ করছে সবকিছু পর্যবেক্ষণ করার পর বাকি ব্যবহারকারীদের কাছে এটি নিয়ে আসা হবে।

শেয়ার করুন:
পুরো সংবাদটি পড়ুন

টেলিকম ও প্রযুক্তি

কর্মক্ষমতা না বাড়লে চাকরি যাবে গুগল কর্মীদের

Published

on

স্টার্টআপ

গুগলের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) সুন্দর পিচাই কর্মীদের কর্মক্ষমতা বাড়ানোর ওপর জোর দিতে বলেছেন । এর ব্যত্যয় ঘটলে চাকরি যেতে পারে বলে ইঙ্গিত দিয়েছেন তিনি।

কয়েক সপ্তাহ আগেই গুগলের সিইও সুন্দর পিচাই কর্মীদের একরকম সতর্ক করে বলেন, কঠোর পরিশ্রম করুন নয়ত প্রস্থানের জন্য প্রস্তুত হন। তিনি বলেছিলেন, পরবর্তী তিন মাসে প্রত্যাশা অনুযায়ী আয় না হলে রাস্তা আরও কঠিন হবে। সুন্দর পিচাই জানিয়েছেন, গুগলের দক্ষতা আরও ২০ শতাংশ বাড়াতে চান তিনি। কারণ তিনি গত কয়েক বছর ধরেই ঘন ঘন নিয়োগ ও আর্থিক প্রতিবন্ধকতার মতো বেশকিছু বিষয়ের সঙ্গে লড়াই করছেন।

লস অ্যাঞ্জেলসে কোড কনফারেন্সে পিচাই জানিয়েছেন, অর্থনৈতিক অনিশ্চয়তা ও বিজ্ঞাপনের আয়ে ব্যাপক মন্দা রয়েছে। তিনি তার পরিকল্পনার কথা প্রতিষ্ঠানের অন্য কর্মীদেরও জানিয়েছেন।

মঙ্গলবার (৬ সেপ্টেম্বর) পিচাই বলেন, আমরা যত ম্যাক্রো-ইকোনমি সম্পর্কে জানব আমাদের এই বিষয়ে অনিশ্চয়তা তত বাড়বে। তিনি আরও বলেন, বিজ্ঞাপনে ব্যয়ের সঙ্গে ম্যাক্রো-ইকোনমির সম্পর্ক রয়েছে।

পিচাই বলেন, একটি সংস্থা হিসেবে নিশ্চিত করতে হবে যে, টাকার যোগান কম রয়েছে এমন পরিস্থিতিতে যাতে সঠিক জিনিসগুলোকে অগ্রাধিকার দেওয়া হয়। তিনি কর্মীদের উৎপাদনশীল হতে বলেন। এছাড়াও সঠিক ও প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রে নিজের সময় ব্যয় করার কথা নিশ্চিত করতে বলেন। পর্যবেক্ষকদের মতে, তার এই বক্তব্যের মধ্যেই কর্মী সংখ্যা কমানোর পরিকল্পনা লুকিয়ে রয়েছে।

তবে এই প্রথম নয়। গত জুলাই মাসেও কর্মীদের উদ্দেশে একটি মেমো লিখেছিলেন গুগলের সিইও। সেখানেই উল্লেখ করা হয়েছিল, সংস্থা চলতি বছরের বাকি সময়টুকুতে নিয়োগের গতি কমিয়ে দেবেন। এর পেছনে বর্তমান আন্তর্জাতিক অবস্থা তুলে ধরেন তিনি।

শেয়ার করুন:
পুরো সংবাদটি পড়ুন

টেলিকম ও প্রযুক্তি

বাংলাদেশিদের প্রশিক্ষণের সঙ্গে ৪০ লাখ টাকা দেবে ফেসবুক

Published

on

স্টার্টআপ

এবার বাংলাদেশে উন্মুক্ত হচ্ছে ‘এশিয়া প্যাসিফিক কমিউনিটি এক্সেলেরেটর’। মেটার এই প্রোগ্রামের লক্ষ্য ফেসবুকের বিভিন্ন গ্রুপের অ্যাডমিনদের নেতৃত্ব বিষয়ক দক্ষতা বিকাশে সাহায্য করা। যেন তারা ডিজিটাল টুল ব্যবহার করে তাদের কমিউনিটির প্রভাব বৃদ্ধি করতে পারেন।

ফেসবুক বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে, নির্বাচিত ফেসবুক কমিউনিটি গ্রুপ মেটা’র গ্লোবালগিভিং প্রোগ্রাম থেকে ৪০ হাজার ইউএস ডলার (প্রায় ৪০ লাখ টাকা) অনুদান পাবে। যার সাহায্যে অ্যাডমিনরা তাদের কমিউনিটির লক্ষ্য অনুযায়ী একটি উদ্যোগের পরিকল্পনা গ্রহণ করে সে উদ্দেশ্যে কাজ করতে পারবেন। এছাড়া কমিউনিটি লিডারদের বিনামূল্যে প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে। তারা তাদের কাজের ক্ষেত্রে অন্যান্য ব্যক্তিদের সাথে আলোচনা ও যোগাযোগেরও সুযোগ পাবেন।

মেটা’র সোশ্যাল ইমপ্যাক্ট অ্যান্ড কমিউনিটিস-এর প্রধান সিদ্ধার্থ স্বরূপ বলেন, ‘দেখে ভালো লাগে যে, বাংলাদেশের মানুষ ফেসবুকে কমিউনিটি গড়ে তোলার মাধ্যমে সমাজে ইতিবাচক প্রভাব রাখছেন। আমরা এসব উদ্ভাবনী বাংলাদেশি গ্রুপগুলোকে আমাদের কমিউনিটি এক্সেলেরেটর প্রোগ্রামে অংশ নেওয়ার জন্য আমন্ত্রণ জানাচ্ছি। আশা করছি, আমাদের এই প্রোগ্রাম তাদের কমিউনিটিকে আরও ভালোভাবে গড়ে তুলতে সাহায্য করবে এবং তাদের লক্ষ্য পূরণে সহায়ক হবে।’

এশিয়া প্যাসিফিক অঞ্চলের ৬টি দেশ – বাংলাদেশ, সিঙ্গাপুর, ইন্দোনেশিয়া, থাইল্যান্ড, মালয়েশিয়া ও ফিলিপাইনের কমিউনিটি লিডাররা এই প্রোগ্রামে আবেদন করতে পারবেন। তাদের একটি ফেসবুক গ্রুপ থাকতে হবে, যা এক বছরের বেশি সময় ধরে চালু আছে এবং সদস্য সংখ্যা হতে হবে ৫ হাজারের বেশি।

মেটা’র কমিউনিটি এক্সেলেরেটর প্রোগ্রাম এবং আবেদনের প্রক্রিয়া সম্পর্কে জানা যাবে এই ঠিকানায় – www.facebook.com/community/accelerator

শেয়ার করুন:
পুরো সংবাদটি পড়ুন

টেলিকম ও প্রযুক্তি

ইন্টারনেট ও স্মার্টফোন শ্বাস-প্রশ্বাসের মতো: মোস্তাফা জব্বার

Published

on

স্টার্টআপ

স্মার্ট বাংলাদেশ গড়ে তোলার জন্য লাগসই ডিজিটাল সংযোগ ও ডিজিটাল ডিভাইস অপরিহার্য। ইন্টারনেট ও স্মার্টফোন শ্বাস-প্রশ্বাসের মতো। ডিজিটাল বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠার ধারাবাহিকতায় ইন্টারনেট এখন মানুষের জীবনধারায় অনিবার্য একটি বিষয় হিসেবে জড়িয়ে আছে বলে মন্তব্য করেছেন ডাক ও টেলিযোগাযোগমন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার।

শুক্রবার (২৬ আগস্ট) ঢাকায় বাংলাদেশ ইন্টারনেট গভর্নেন্স ফোরাম (বিআইজিএফ) আয়োজিত ‘রিসাইলেন্ট ইন্টারনেট ফর এ শেয়ার্ড সাসটেইনেবল অ্যান্ড কমন ফিউচার: এক্সেস অ্যান্ড কানেকটিভিটি, কমিউনিটি নেটওয়ার্কস, ক্যাপাসিটি ডেভেলপমেন্ট অ্যান্ড ডিজিটাল ইনক্লিউসন’ শীর্ষক অধিবেশনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়বিষয়ক সংসদীয় স্থায়ী কমিটি এবং বিআইজিএফ চেয়ারম্যান হাসানুল হক ইনু অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন।

ডাক ও টেলিযোগাযোগমন্ত্রী বলেন, পৃথিবীর সবচেয়ে বড় লাইব্রেরি হচ্ছে ইন্টারনেট। কাউকে এ থেকে বঞ্চিত করা ঠিক নয়। ইন্টারনেট ব্যবহারের খারাপ দিকও আছে, আবার খারাপ দিক থেকে রক্ষার উপায়ও আছে। সেটা থেকে ছেলে-মেয়েদের সুরক্ষায় অভিভাবকদেরকেই ভূমিকা নিতে হবে। প্যারেন্টাইল গাইড ব্যবহার করে ইন্টারনেট শতভাগ নিয়ন্ত্রণ করা সম্ভব।

অনুষ্ঠানে বিটিআরসির ভাইস চেয়ারম্যান সুব্রত রায় মৈত্র, অ্যামটবের সাবেক মহাসচিব টিআইএম নুরুল কবির, আইজিএফ’র সেক্রেটারি জেনারেল মোহাম্মদ আবদুল হক অনু, ইয়ুথ ইন্টারনেট গভর্নেন্স ফোরামের চেয়ারপার্সন সৈয়দা কামরুন জাহান রিপা এবং কিডস ইন্টানেট গভর্নেন্স ফোরামের চেয়ারপার্সন আয়শা লাবিবা প্রমুখ বক্তৃতা করেন।

শেয়ার করুন:
পুরো সংবাদটি পড়ুন

ফেসবুকে অর্থসংবাদ

স্টার্টআপ
জাতীয়3 hours ago

শেখ হাসিনার জন্যই দেশজুড়ে শান্তির সুবাতাস বইছে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

স্টার্টআপ
জাতীয়5 hours ago

আইজিপির দায়িত্ব নিলেন চৌধুরী আবদুল্লাহ আল মামুন

স্টার্টআপ
সারাদেশ5 hours ago

এক টাকায় পছন্দের পোশাক,সহযোগীতায় চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশ

স্টার্টআপ
কর্পোরেট সংবাদ6 hours ago

স্বপ্ন এখন মৌলভীবাজারের শেরপুরে

স্টার্টআপ
জাতীয়6 hours ago

বিশৃঙ্খলা সৃষ্টিকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা সরকারের দায়িত্ব: তথ্যমন্ত্রী

স্টার্টআপ
পরিবেশ7 hours ago

৩ দিনের মধ্যে সাগরে লঘুচাপ সৃষ্টি হতে পারে, বাড়বে বৃষ্টি

স্টার্টআপ
জাতীয়7 hours ago

র‍্যাবের ডিজি হিসেবে দায়িত্ব নিলেন এম খুরশীদ হোসেন

স্টার্টআপ
ক্রিকেট8 hours ago

আসন্ন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের প্রাইজমানি ঘোষণা

স্টার্টআপ
জাতীয়9 hours ago

আমাদের হাঁটু ভাঙবে না, কোমরও ভাঙবে না: কাদের

স্টার্টআপ
রাজধানী11 hours ago

রাজধানীতে মাদকবিরোধী অভিযানে গ্রেফতার ৫৯

তারিখ অনুযায়ী খবর

October 2022
S M T W T F S
 1
2345678
9101112131415
16171819202122
23242526272829
3031  
Advertisement
Advertisement

এ সপ্তাহের আলোচিত

সম্পাদক : হায়দার আহমেদ খান এফসিএ

কার্যালয় : ৫৬ পুরানা পল্টন, শখ সেন্টার, লেভেল-৪, ঢাকা।

news.orthosongbad@gmail.com

+8801791004858

স্বত্ব © ২০২২ অর্থসংবাদ