জীবন বীমা কর্পোরেশনের প্রিমিয়াম সংগ্রহ করবে ব্র্যাক ব্যাংক

নিউজ ডেস্ক, অর্থ সংবাদ.কম, ঢাকা প্রকাশ: ২০২২-০৬-১৭ ১৬:২৪:২১

ব্র্যাক ব্যাংক-এর বিভিন্ন ফিজিক্যাল ও ডিজিটাল চ্যানেল এবং সাবসিডিয়ারি প্রতিষ্ঠান বিকাশ-এর মাধ্যমে বীমা প্রিমিয়াম সংগ্রহের জন্য ব্র্যাক ব্যাংক দেশের একমাত্র রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন লাইফ ইন্সুরেন্স সংস্থা, জীবন বীমা কর্পোরেশন (জেবিসি)-এর সাথে একটি চুক্তি স্বাক্ষর করেছে।

এই চুক্তির অধীনে, সারা দেশে জীবন বীমা কর্পোরেশন-এর পলিসি- হোল্ডারদের এখন বিকাশ অ্যাপ এবং ইউএসএসডি কোড *২৪৭# এর মাধ্যমে বীমা প্রিমিয়াম পরিশোধ করতে পারবেন। এছাড়াও, জেবিসি ব্র্যাক ব্যাংক-এর ‘ডাইরেক্ট ডেবিট পুল’ সার্ভিসের মাধ্যমে এর গ্রাহকদের ব্যাংক অ্যাকাউন্ট থেকে প্রিমিয়াম সংগ্রহ করতে পারবে। ব্র্যাক ব্যাংক এবং বিকাশ জেবিসি’র কেন্দ্রীয় অ্যাকাউন্ট ম্যানেজমেন্ট সিস্টেমের সাথে এপিআই সংযোগ স্থাপন করেছে বলে, এই চুক্তি জেবিসি-কে রিয়েল-টাইম অ্যাকাউন্ট রিকনসিলিয়েশন করতে সাহায্য করবে।

১৫ জুন, ২০২২ বিকাশ ও ‘ডাইরেক্ট ডেবিট পুল’ সলিউশনটি দ্যা ওয়েস্টিন ঢাকায় একটি অনুষ্ঠানে আনুষ্ঠানিকভাবে চালু করা হয়। এই চুক্তির অধীনে বিভিন্ন সেবা অন্যান্য চ্যানেলে যেমন, ব্র্যাক ব্যাংক-এর এজেন্ট ব্যাংকিং, শাখা/উপশাখা নেটওয়ার্ক, পেমেন্ট গেটওয়ে এবং মোবাইল অ্যাপ ‘আস্থা’য় শিঘ্রই পাওয়া যাবে।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন অর্থ মন্ত্রণালয়ের আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগের সচিব শেখ মোহাম্মদ সলীম উল্লাহ। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেবিসি-এর চেয়ারম্যান (সাবেক সিনিয়র সচিব) মোঃ আসাদুল ইসলাম। এছাড়াও অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন জেবিসি-এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক (অতিরিক্ত সচিব) মোঃ সাইফুল ইসলাম, ব্র্যাক ব্যাংক-এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা সেলিম আর. এফ. হোসেন, বিকাশ লিমিটেড-এর চিফ এক্সটার্নাল অ্যান্ড কর্পোরেট অ্যাফেয়ার্স অফিসার মেজর জেনারেল শেখ মোঃ মনিরুল ইসলাম (অব.) ও ব্র্যাক ব্যাংক-এর ডেপুটি ম্যানেজিং ডিরেক্টর অ্যান্ড হেড অব কর্পোরেট ব্যাংকিং তারেক রেফাত উল্লাহ খান।

এ পার্টনারশিপ সম্পর্কে ব্র্যাক ব্যাংক-এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা সেলিম আর. এফ. হোসেন বলেন: “গত কয়েক বছরে ব্র্যাক ব্যাংক বিভিন্ন ভ্যালু অ্যাডিং কালেকশন ও পেমেন্ট সলিউশন, বিশেষ করে বীমা খাতের জন্য, চালুর মাধ্যমে ট্রানজেকশন ব্যাংকিংকে সমৃদ্ধ করেছে। জীবন বীমা কর্পোরেশন-এর সাথে আমাদের পার্টনারশিপ গ্রাহকদের ব্যাপকভাবে উপকৃত করবে, কারণ তারা যেকোন জায়গায় যেকোন সময় প্রিমিয়াম পরিশোধ করতে পারবেন। প্রিমিয়াম জমা দেওয়ার জন্য গ্রাহকদের আর জেবিসি অফিসে যেতে হবে না, বরং অ্যাপ ব্যবহার করে মাত্র কয়েকটি ক্লিকে অর্থপ্রদান করতে পারবেন। ব্র্যাক ব্যাংক ও এর সাবসিডিয়ারি প্রতিষ্ঠান বিকাশ লিমিটেড-কে এই ডিজিটাল উদ্যোগের অংশীদার করার জন্য আমরা জেবিসি-কে ধন্যবাদ জানাই, যা সরকারের ডিজিটাল বাংলাদেশের রূপকল্পের সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণ। একটি গ্রাহককেন্দ্রিক ব্যাংক হিসাবে, ব্র্যাক ব্যাংক সবসময় স্বাচ্ছন্দ্যময় গ্রাহক অভিজ্ঞতা প্রদানের জন্য নতুন নতুন সেবা চালু করে।”

অর্থ মন্ত্রণালয়ের আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগের সচিব শেখ মোহাম্মদ সলীম উল্লাহ বলেন: “বীমা খাতে, সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হল গ্রাহকদের আস্থা অর্জন। ব্র্যাক ব্যাংক, জীবন বীমা কর্পোরেশন এবং বিকাশ-এর এই উদ্যোগের মাধ্যমে গ্রাহকরা উপকৃত হবেন, কারণ যে কোনো স্থান থেকে যে কোনো সময় প্রিমিয়াম পরিশোধ করা যাবে। এটি ডিজিটালাইজেশনের একটি সুখবর। আমি আশা করি, এই যৌথ উদ্যোগ মানুষকে আরও নিরাপদে এবং সুবিধাজনকভাবে বীমা সেবা উপভোগ করতে সহায়তা করবে।”

বিকাশ লিমিটেড-এর চিফ এক্সটার্নাল অ্যান্ড কর্পোরেট অ্যাফেয়ার্স অফিসার মেজর জেনারেল শেখ মোঃ মনিরুল ইসলাম (অব.) বলেন, “আমরা ব্র্যাক ব্যাংক-এর সহযোগিতায় সরকারের মালিকানাধীন বৃহত্তম বীমা সেবা প্রদানকারী জীবন বীমা কর্পোরেশন-এর সাথে পার্টনারশিপ করতে পেরে আনন্দিত। পলিসি-হোল্ডারা দিন বা রাতের যেকোনো সময় যে কোনো জায়গা থেকে বিকাশ-এর মাধ্যমে তাদের প্রিমিয়াম জমা দেওয়ার সুযোগ পাবেন। এর ফলে বীমা শিল্পে আরও গতিশীলতা আসবে। একটি কমপ্লায়েন্ট প্রতিষ্ঠান হিসাবে বিকাশ এর ৬.২ কোটি গ্রাহকদের মধ্যে বীমা সেবাকে আরও জনপ্রিয় করতে সব ধরনের সহায়তা দেবে।”

এই ডিজিটাল সার্ভিসটি চালু উপলক্ষে অনুষ্ঠানে বিকাশ-এর পেমেন্ট ও ব্র্যাক ব্যাংক-এর ডাইরেক্ট ডেবিট পুলের লাইভ লেনদেন প্রদর্শন করা হয়।

আমরা সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও সংবাদ